ব্রেকিং নিউজ

রাত ১১:২০ ঢাকা, বুধবার  ১৮ই জুলাই ২০১৮ ইং

চাল-গম আমদানি

“১১ লাখ টন চাল-গম আমদানি করবে সরকার”

সরকার আগামী অর্থবছরের জন্য (২০১৮-১৯) আরো ১১ লাখ মেট্রিক টন খাদ্য আমদানির পরিকল্পনা নিয়েছে। আজ খাদ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বদরুল হাসান বলেন, আমরা দেশের খাদ্য চাহিদা মেটাতে আগামী অর্থবছরের জন্য বিদেশ থেকে ৭ লাখ মেট্রিকটন চাল ও ৪ লাখ মেট্রিকটন গম আমদানি করতে প্রস্তুত।

তিনি বলেন, দেশে খাদ্য পণ্যের পর্যাপ্ত মজুদ রয়েছে এবং বোরো ধান সংগ্রহ কার্যক্রম কয়েক মাসের মধ্যেই শুরু হবে, তাই শিগগিরই খাদ্য আমদানির প্রয়োজন নেই। কিন্তু প্রাকৃতিক বিপর্যয়ে দেশে উৎপাদিত ফসলের ক্ষতির আশংকা থেকে সরকার ১১ লাখ মেট্রিকটন খাদ্য আমদানির ব্যবস্থা নিয়েছে।

সরকার ইতোমধ্যে চলতি অর্থবছরে (২০১৭-১৮) ১০ লাখ মেট্রিকটন খাদ্য আমদানি করেছে।

দেশের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চল হাওর এলাকায় আকস্মিক বন্যায় খাদ্য শস্যের বিশেষ করে বোরো ধানের ব্যাপক ক্ষতি কারণে চালের মজুদ হ্রাস পাওয়ার পাশাপাশি দেশের বাজারে চালের দাম বৃদ্ধি পাওয়ায় গত অর্থবছরে চাল আমদানি বৃদ্ধি পায়। সরকার চলতি অর্থবছরে ভিয়েতনাম, ভারত, থাইল্যান্ড, কম্বোডিয়া ও রাশিয়া থেকে জি টু জি পদ্ধতিতে ১০ লাখ ৮০ হাজার ধান ও চাল আমদানি করেছে। ৮ লাখ ১৮ হাজার টন চাল ও গম ইতোমধ্যেই বন্দর থেকে খালাস করা হয়েছে। অবশিষ্ট ২ লাখ ৬৮ হাজার টন খালাসের অপেক্ষায় রয়েছে।

বর্তমানে খাদ্যগুদামে ৯ লাখ ৭০ হাজার টন চাল ও ৩ লাখ ৬২ হাজার টন গম মজুদ রয়েছে।