শীর্ষ মিডিয়া

ব্রেকিং নিউজ

রাত ২:০৪ ঢাকা, বৃহস্পতিবার  ২১শে ফেব্রুয়ারি ২০১৯ ইং

স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক।
সরকারি বিভিন্ন হাসপাতাল, ইনস্টিটিউট এর পরিচালক এবং মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষদের সাথে মতবিনিময় সভা

হাসপাতালে ‘অভিযোগ কর্নার’ খোলার নির্দেশ স্বাস্থ্যমন্ত্রীর

সরকারি হাসপাতালে সেবা নিতে আসা রোগীদের অভিযোগ বা সমস্যা জানানোর জন্য ‘অভিযোগ কর্নার’ খোলার নির্দেশ দিয়েছেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক।

আজ মঙ্গলবার সচিবালয়ে সরকারি বিভিন্ন হাসপাতাল, ইনস্টিটিউট এর পরিচালক এবং মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষদের সাথে মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্বকালে তিনি এই নির্দেশ প্রদান করেন।

জাহিদ মালেক বলেন, ‘সেবা নিতে আসা রোগীদের অভিযোগ বা সমস্যা জানানোর জন্য স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয় এবং স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের ওয়েবসাইটে ‘অভিযোগ কর্নার’ খোলা হবে। আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে এই কর্নার তৈরি করে গণমাধ্যমের মাধ্যমে জনসাধারণকে অবহিত করা হবে।’ তিনি বলেন, সরকারি হাসপাতালকে রোগীবান্ধব হিসাবে গড়ে তুলতে সর্বোচ্চ আন্তরিকতা ও সচ্ছতার সাথে সকলকে কাজ করতে হবে।

সভায় অন্যান্যের মাঝে স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান, স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সচিব মো. আসাদুল ইসলাম, স্বাস্থ্য শিক্ষা ও পরিবার কল্যাণ বিভাগের সচিব জি এম সালেহ উদ্দিন, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদসহ দেশের সকল জেলার সরকারি হাসপাতাল, ইনস্টিটিউটের পরিচালক এবং মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষগণ উপস্থিত ছিলেন।

জাহিদ মালেক বলেন, হাসপাতালগুলোতে জনবল উপস্থিত, অবকাঠামো ও যন্ত্রপাতি রক্ষণাবেক্ষণ, পরিচ্ছন্নতা বজায় রাখার লক্ষ্যে একটি মনিটরিং নেটওয়ার্ক গড়ে তোলা হবে। আধুনিক তথ্য প্রযুক্তির মাধ্যমে রাজধানী থেকে শুরু করে তৃণমূল পর্যন্ত সব হাসপাতালকে নিয়মিত কঠোর নজরদারির আওতায় নিয়ে আসবে এই নেটওয়ার্ক।

দুর্গম অঞ্চলের হাসপাতালগুলোও এই নেটওয়ার্ক থেকে বিচ্ছিন্ন থাকবে না। হাসপাতালগুলোর যে কোনো সমস্যা এই নেটওয়ার্কের মাধ্যমে চিহ্নিত করে দ্রুততম সময়ের মধ্যে সমাধানের উদ্যোগ নিতে হবে। বেসরকারি হাসপাতালগুলোর উপরও নিবিড় তত্ত্বাবধান বাড়ানো হবে জানিয়ে জাহিদ মালেক বলেন, বেসরকারি হাসপাতালে কোনো অনাকাংখিত ঘটনা ঘটলে তার জন্যে সংশ্লিষ্ট হাসপাতালকে জবাবদিহির আওতায় আনতে নীতিমালার কঠোর অনুসরন করতে হবে।

পরে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার আবাসিক প্রতিনিধি ড. বর্দন জং রানা সচিবালয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রীর সাথে সাক্ষাৎ করে অভিনন্দন জানিয়ে বলেন, পূর্বের মতোই বাংলাদেশের স্বাস্থ্যখাতের উন্নয়নে বিশ্ব সংস্থার সহায়তা অব্যাহত থাকবে। তিনি সংস্থার দক্ষিণ-পূর্ব এশীয় অঞ্চলের পরিচালক ড. পুনম ক্ষেত্রপাল সিং-এর শুভেচ্ছাও স্বাস্থ্যমন্ত্রীর কাছে পৌঁছে দেন।

এর আগে স্বাস্থ্যমন্ত্রী হিসাবে দায়িত্ব গ্রহণ করায় জাহিদ মালেককে অভিনন্দন জানাতে আসেন পার্টনার্স ইন পপুলেশন এন্ড ডেভেলপমেন্ট (পিপিডি) এর নির্বাহী পরিচালক আদনান বেন হাজ আইসা।