ব্রেকিং নিউজ

দুপুর ১:৩১ ঢাকা, সোমবার  ২৪শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

গ্রেফতার
ফাইল ফটো

হামলা-ভাংচুর-লুট, রাজাপুর ছাত্রলীগ সভাপতি গ্রেপ্তার

ঝালকাঠি প্রতিনিধি ॥ ঝালকাঠির রাজাপুরে রাতে ঘুমন্ত অবস্থায় এক পরিবারের বসতঘরে হামলা-ভাংচুর, দখলের চেষ্টা ও মালামাল লুটের অভিযোগে উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি আহসান হাবিব রুবেলসহ পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় ছয় মহিলাসহ সাত জন আহত হয়েছে। আহতদের রাজাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

গতকাল শনিবার রাত ৪টার দিকে রাজাপুর ডিগ্রি কলেজ এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

আহতরা হলেন, সাহেরা বেগম (৪৬), শারমিন আক্তার (৩০), কবিতা (২৭), তাসলিমা (৩০), সৈয়দ মান্নান (৬০), সালেহা বেগম (৬০) ও আম্বিয়া বেগম (৬০)। গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন, উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি আহসান হাবিব রুবেল (৩২), তাঁর মা ছাহেরা বেগম (৪৫), আবু ছালেহ (২৮), নজরুল ইসলাম (২৮) ও শারমিন আক্তার (৩০)।

আহতরা জানান, রাত চারটার দিকে রাজাপুর উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতির নেতৃত্বে ১০-১২ জনদের একটি দল স্থানীয় ডিগ্রি কলেজের পশ্চিম পাশে ফারুক সিকদারের বসতঘরে হামলা চালায়। এ সময় ওই পরিবারের সকলে ঘুমিয়ে ছিল। হামলাকারীদের মধ্যে কয়েকজন মুখোশ পড়া ছিল। কিছু বুঝে ওঠার আগেই হামলাকারীরা বসত ঘরে ভাংচুর চালিয়ে এবং লোহার রড দিয়ে এলোপাথারি পেটাতে থাকে। হামলায় পরিবারের সাতজন আহত হয়। হামলাকারীরা ঘরের মূল্যবান মালামাল লুট করে নেয় বলেও ক্ষতিগ্রস্তরা অভিযোগ করেন। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে রাজাপুর উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতিসহ পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করে।

রাজাপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন আহত সালেহা বেগম অভিযোগ করেন, রাতে আমরা পরিবারের সবাই ঘুমিয়ে ছিলাম। দখলের চেষ্টায় ঘুমন্ত অবস্থায় ছাত্রলীগ সভাপতি রুবেল ও তার পরিবারের লোকজন এবং কয়েকজন মুখোশধারী সন্ত্রাসী আমাদের বসতঘরে হামলা চালায়। আমরা আতঙ্কিত হয়ে পড়ি। তারা ঘরের ভেতরে ঢুকে আমাদের লোহার রড ও লাঠিসোটা দিয়ে পিটিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। আমাদের চিৎকার শুনে কেউ হয়তো থানায় ফোন করে। পুলিশ এসে হামলাকারীদের মধ্যে পাঁচজনকে ধরে ফেলতে সক্ষম হয়।
রাজাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা আবুল খায়ের মাহামুদ রাসেল বলেন, আহতদের মাথায় এবং শরীরের বিভিন্নস্থানে জখম রয়েছে। সকাল থেকেই তাদের চিকিৎসা চলছে।

রাজাপুর থানা পরিদর্শক (তদন্ত) হারুন অর রশীদ জানান, মৌখিক অভিযোগের ভিত্তিতে রাত সাড়ে চারটার দিকে ডিগ্রি কলেজ এলাকার ফারুক সিকদারের বসতঘর থেকে পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এ ঘটনায় মামলা দায়েরর প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান তিনি।

রাজাপুর উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক বাপ্পি মৃধা বলেন, এটা একটি সম্পূর্ণ পারিবারিক ঘটনা। এ ঘটনার সঙ্গে রাজনৈতিক কোন সম্পর্ক নেই।