Sheersha Media

ব্রেকিং নিউজ

সন্ধ্যা ৬:২৫ ঢাকা, রবিবার  ১৮ই নভেম্বর ২০১৮ ইং

হরতালে রংপুরে আ. লীগ নেতা হানিফের কুশপুত্তলিকা দাহ

গণজাগরণ মঞ্চের ডাকা অর্ধদিবস হরতাল রংপুরে শান্তিপূর্ণভাবে পালিত হয়েছে। মঙ্গলবার প্রগতিশীল লেখক, প্রকাশক, ব্লগার হত্যাকারীদের  গ্রেফতার ও বিচার এবং জানমালের নিরাপত্তার দাবিতে সারা দেশের মত রংপুরেও এ কর্মসূচি পালত হয়।
হরতালের সমর্থনে গণজাগরণ মঞ্চ, ছাত্রইউনিয়ন, জাসদসহ বিভিন্ন সংগঠন নগরীতে বিক্ষোভ মিছিল, সমাবেশ করে। হরতাল চলাকালে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় যুগ্ম সম্পাদক মাহবুব-উল-আলম হানিফের কুশপুত্তলিকা দাহ করেছে।
এদিকে হরতালে অধিকাংশ দোকানপাট বন্ধ ছিল। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে শিক্ষার্থীদের উপস্থিতি ও যানবনাহনের সংখ্যা ছিল কম। ব্যাংক বীমায় লেনদেন ছিল কম।
পুলিশ সূত্র জানায়, হরতাল চলাকালে আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা ছিল সতর্কাবস্থায়। কোথাও কোন অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি।
রংপুর জেলা গণজাগরণ মঞ্চ সকাল ৬টায় স্থানীয় প্রেসক্লাব চত্বরে জমায়েত হয়ে নগরের গুরুত্বপূর্ণ সড়কে দফায় দফায় মিছিল ও শাপলা চত্বর, শহীদ অঙ্গন জত্তরে(জাহাজকোম্পানী মোড়), পায়রা চত্বর ও প্রেসক্লাবের সামনে সমাবেশ করে।
সমাবেশে জেলা গণজাগরণ মঞ্চের সমন্বয়কারী রকিবুল হাসান রকেটের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন, সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্ট জেলা আহ্বায়ক সাদেক হোসেন, ছাত্র ইউনিয়ন জেলা সভাপতি রাতুজ্জামান রাতুল, প্রদ্বীপ বর্মন, ছাত্র ফ্রন্টের মোসলেহ উদ্দিন, আশিকুল ইসলাম তুহিন, রুহুল আমিন প্রমুখ। এসময় উপস্থিত ছিলেন সিপিবি জেলা সভাপতি কমরেড শাহাদত হোসেন, শাহীন রহমান, বাসদ জেলা সমন্বক কমরেড আব্দুল কুদ্দুস, মমিনুল ইসলাম, ডা: মফিজুল ইসলাম মান্টু, মুক্তিযোদ্ধা মোজাফ্ফর হোসেন চাঁদ।
একই কর্মসূচিতে সংহতি জানিয়ে বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে লেখক-প্রকাশক হত্যার প্রতিবাদে ছাত্র ইউনিয়ন বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে। একই সাথে তারা গণজাগরণ মঞ্চের হরতালের সমর্থনে স্লোগান দেয়।
দাবির সমর্থনে রংপুর বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় (বেরোবি) শাখা ছাত্র ইউনিয়ন বেরোবি সংসদ মুক্তমনা মানুষদের হত্যার প্রতিবাদে এক বিক্ষোভ মিছিল করে। মিছিলটি কবি হেয়াত মামুদ ভবন থেকে শুরু হয়ে বিভিন্ন ভবন প্রদক্ষিণ করে পুনরায় হেয়াত মামুদ ভবনে এসে শেষ হয়।
সেখানে এক সভায় সভাপতিত্ব করেন ছাত্র ইউনিয়ন বেরোবি সংসদের সভাপতি এলমিনা মনি। বক্তব্য রাখেন সাধারণ সম্পাদক মশিউর রহমান বিশ্বাস, সাংগঠনিক সম্পাদক জিনাত আরা আফরিন এবং সদস্য আহমেদ নাসির।
জাগৃতি প্রকাশনীর কর্ণধার ফয়সল আরেফিন দীপনের বাবা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের শিক্ষক আবুল কাশেম ফজলুল হককে উদ্দেশ করে আপত্তিকর মন্তব্য করার প্রতিবাদে দুপুরে স্থানীয় প্রেসক্লাব চত্বরে মাহবুব -উল -আলম হানিফের কুশপুত্তলিকা দাহ করেছে জাসদ ও ছাত্রলীগ।
এ সময় মহানগর জাসদের সভাপতি ফারুখ অহাম্মেদ, অর্থ সম্পাদক কুমারেশ রায়, মহানগর ছাত্রলীগের সভাপতি ওসমান গনিসহ দলটির নেতা-কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। তারা হানিফের রাজনীতি নিষিদ্ধ করার দাবি জানান।
নেতৃবৃন্দ দেশে প্রকৃত গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করতে হলে সাম্প্রদায়িক রাজনীতি আইন করে নিষিদ্ধ করা, হুমায়ুন আজাদসহ সকল লেখক হত্যাকারীদের বিচার এবং সকল যুদ্ধাপরাধীদের সর্বোচ্চ শাস্তি নিশ্চিত করার দাবি জানান। যুগান্তর