Sheersha Media

ব্রেকিং নিউজ

রাত ৪:৩৮ ঢাকা, শুক্রবার  ১৬ই নভেম্বর ২০১৮ ইং

স্বাধীনতার ঐতিহাসিক স্থাপনা সংরক্ষণে আইনজীবী মোরসেদ এর ভূমিকা প্রসংশনীয় : আমু

শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু বলেছেন, স্বাধীনতার ঐতিহাসিক স্থাপনাসমূহ সংরক্ষণে জন্য উচ্চ আদালতে রিট করে সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী এ্যাডভোকেট মনজিল মোরসেদ প্রসংশনীয় ভূমিকা পালন করেছেন।
শুক্রবার বিকেলে ঝালকাঠি শিল্পকলা একাডেমি মিলানায়তনে জাতীয় পরিবেশ পদক’ ২০১৫ পাওয়ায় ঝালকাঠির সন্তান হিউম্যান রাইটস এ্যান্ড পিস ফর বাংলাদেশের প্রেসিডেন্ট এ্যাডভোকেট মনজিল মোরসেদের সংর্বধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। ঝালকাঠি প্রেসক্লাব এ সংবর্ধনার আয়োজন করে।
প্রেসক্লাব সভাপতি চিত্তরঞ্জন দত্ত’র সভাপতিত্বে ও সাধারন সম্পাদক আক্কাস সিকদারের সঞ্চালনায় সংর্বধনা অনুষ্ঠানে ঝালকাঠির জেলা প্রশাসক রবীন্দ্র শ্রী বড়–য়া, পুলিশ সুপার সুভাষ চন্দ্র সাহা, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট খান সাইফুল্লাহ পনির, পৌর মেয়র আফজাল হোসেন, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মো.সুলতান হোসেন খান, আইনজীবী সমিতির সভাপতি আব্দুল মন্নান রসুল প্রমুখ।
আমির হোসেন আমু বলেন, মনজিল মোরসেদ বুড়িগঙ্গা নদীসহ দেশের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ নদীগুওলোকে পরিবেশ দূষণের কবল থেকে রক্ষা করতে আইনী লড়াই চালিয়েছেন। যা নিঃসন্দেহে প্রশসংসার দাবী রাখে। পরিবেশ রক্ষায় তার অবদানের স্বিকৃতী সরূপ সরকার তাকে পরিবেশ পদকে ভূষিত করেছে এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিজ হাতে মনজিল মোরসেদের হাতে পদক তুলে দিয়েছেন।
শিল্পমন্ত্রী আরও বলেন, শুধু পরিবেশ রক্ষায় নয় মনজিল মোরসেদ ঐতিহাসিক স্থাপনা লালবাগের কেল্লা, সূচিত্রা সেনের বাড়ি রক্ষায় অসামান্য অবদান রেখেছেন। বাংলাদেশের কোন আইনজীবী হিসেবে এবং ঝালকাঠির সন্তান হিসেবে মনজিল মোরসেদই প্রথম কোন জাতীয় পদকে ভূষিত হয়েছে।
এ সময়ে মনজিল মোরসেদ বলেন, আজকের এই সংবর্ধনা হল আমার কাজের স্বীকৃতি। আমার দায়ের করা রিটের কারনে অনেক প্রভাশালী মহল ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে। তারা নানাভাবে আমাকে ভয়ভীতি প্রদান ও হুমকি দিচ্ছে। অনেকে আমার কাজে খুশি হয়ে উৎসাহ ও সংবর্ধনা দিচ্ছে। তাই আমি আমার কাজ চালিয়ে যাব কোন হুমকিতে থামবো না।
সংর্বধনা শেষে এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে নৃত্য পরিবেশন করে ঢাকার জাগো আর্ট সেন্টারের নৃত্য শিল্পীরা।