Sheersha Media

ব্রেকিং নিউজ

রাত ৯:৩০ ঢাকা, বুধবার  ১৪ই নভেম্বর ২০১৮ ইং

চুমকি
মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী মেহের আফরোজ চুমকি, ফাইল ফটোঃ

‘ইসলামের নামে নিরিহ মানুষকে হত্যা করছে সেই অপশক্তি’

মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী মেহের আফরোজ চুমকি বলেছেন,’৭১-এর পরাজিত শক্তি বাংলাদেশের অগ্রযাত্রাকে রুখতে কালে-কালে নানাভাবে ষড়যন্ত্র করছে।

বঙ্গবন্ধুকে স্বপরিবারে হত্যার মধ্যদিয়ে তারা এক সময় রাষ্ট্র ক্ষমতা দখল করেছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘বর্তমানে এই অপশক্তি ইসলামের নামে জঙ্গিবাদের মাধ্যমে নিরিহ মানুষকে হত্যা করছে’।

প্রতিমন্ত্রী আজ রোববার জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে ‘বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিবের ৮৬তম জন্মবার্ষিকী’ উপলক্ষ্যে আয়োজিত এক মানব-বন্ধনে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এ কথা বলেন।

সন্ত্রাস ও জঙ্গীবাদ প্রতিরোধে মায়েদের সচেতন করতে মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয় এ মানব-বন্ধন কর্মসূচি’র আয়োজন করে।

মেহের আফরোজ চুমকি বলেন, স্বাধীনতা বিরোধী শক্তি এখন জঙ্গিবাদের মাধ্যমে নারীর অগ্রযাত্রাকে ব্যহত করতে চাচ্ছে। নারীকে তারা আবার গৃহে অবরুদ্ধ করতে চায়। এই বিষয়ে সকল নারী সমাজকে সচেতন হতে হবে।

মায়েদের উদ্দেশে তিনি বলেন,‘আপনাদের সন্তানদের দিকে খেয়াল রাখবেন,তাদের সাথে দূরত্ব কমিয়ে বন্ধুর মতো আচরণ করবেন।’
মহিলা ও শিশু বিষয়ক সচিব নাছিমা বেগম, জাতীয় মহিলা সংস্থা’র চেয়ারম্যান অধ্যাপক মমতাজ বেগম এবং মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা-কর্মচারী ও বিভিন্ন নারী সংগঠনের কর্মীবৃন্দ মানব-বন্ধনে উপস্থিত ছিলেন।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের মানুষ জঙ্গীবাদ পছন্দ করে না। তিনি বলেন, এই বাংলার মাটিতে যুদ্ধাপরাধী ও বঙ্গবন্ধুর খুনীদের শাস্তি নিশ্চিত করা হয়েছে। জঙ্গীবাদও চিরতরে নির্মূল করা হবে। শুধু মায়েরা সচেতন হলে জঙ্গি তৈরি হবে না বলেও তিনি উল্লেখ করেন।

নাছিমা বেগম বলেন, জঙ্গিদের লাশ তাদের পরিবারও গ্রহণ করছে না। বেওয়ারিশ লাশ হিসেবে এসব লাশ দাফন হচ্ছে। তাই তরুণ সমাজকে বুঝতে হবে, নিরীহ মানুষকে হত্যা করা ইসলামের শিক্ষা নয় বলে তিনি উল্লেখ করেন।