ব্রেকিং নিউজ

রাত ১১:০৮ ঢাকা, মঙ্গলবার  ১৮ই সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

সিসিটিভি ক্যামেরা
সিসিটিভি ক্যামেরা, ছবিঃ সংগৃহীত

‘সারাদেশের সড়কে সিসিটিভি বসানোর নির্দেশনা’

সড়ক নিরাপত্তা সংক্রান্ত ‘উচ্চ ক্ষমতা সম্পন্ন সরকারি কমিটি’ সড়ক দুর্ঘটনা এড়াতে সারাদেশের সড়ক, মহাসড়কগুলোকে ক্লজ সার্কিট টেলিভিশন (সিসিটিভি) ক্যামেরার আওতায় আনার জন্য সংশ্লিষ্টদের নির্দেশনা দিয়েছে।

‘ঢাকা মহানগরীসহ দেশের ট্রাফিক ব্যবস্থার উন্নয়ন কার্যক্রম বাস্তবায়ন ও নিরাপদ সড়ক নিশ্চিতকরণে সার্বিক পর্যবেক্ষণের লক্ষ্যে গঠিত উচ্চ ক্ষমতা সম্পন্ন সরকারি কমিটির প্রথম বৈঠকে এ নির্দেশনা দেয়া হয়।

সোমবার প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত এ বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন কমিটির প্রধান ও প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সচিব সাজ্জাদুল হাসান।

বৈঠক সূত্রে জানানো হয়, সারাদেশের সড়ক ও মহাসড়কগুলোকে সিসিটিভি ক্যামেরা নেটওয়ার্কের আওতায় আনার জন্য প্রয়োজনীয় কার্যক্রম গ্রহণে স্থানীয় প্রশাসনসহ স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠানগুলোর সহায়তা নেয়ারও আহবান জানানো হয়েছে।
সড়ক নিরাপত্তা নিশ্চিতের লক্ষ্যে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণে সরকার গত ২০ আগষ্ট প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সচিব সাজ্জাদুল হাসানকে প্রধান করে উচ্চ ক্ষমতা সম্পন্ন এ কমিটি গঠন করে।

কমিটির প্রথম বৈঠকে ঈদুল আজহার পূর্বে ও পরে রাজধানীসহ সারাদেশের সড়ক দুর্ঘটনা এবং সার্বিক পরিবহন ব্যবস্থাপনা নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়।

এছাড়াও রুট পারমিটবিহীন যানবাহন চলাচল বন্ধে এবং ট্রাফিক আইন সঠিকভাবে মেনে চলার বাধ্যবাধকতার জন্যই সড়ক-মহাসড়কে মোবাইল কোর্টের কার্যক্রম জোরদার করাও নির্দেশনা দেয়া হয়।

এ সভায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহতদের আত্মার মাগফিরাত কামনা এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি সমবেদনা জানানো এবং আহতদের দ্রুত আরোগ্য কামনা করা হয়। পাশাপাশি দুর্ঘটনার জন্য দায়ী ব্যক্তিদের দ্রুত শাস্তির আওতায় আনার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দেয়া হয়।

এ ছাড়া ঢাকাসহ সারাদেশে নিরাপদ সড়ক নিশ্চিত করতে চলমান কার্যক্রম জোরদার করতে সংশ্লিষ্ট সবাইকে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণের জন্যও আহবান জানানো হয়।

বৈঠকে ট্রাফিক আইন মেনে চলতে জনগণকে উদ্বুদ্ধ করতে জনসচেতনতামূলক কর্মসূচি গ্রহণেরও সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।