ব্রেকিং নিউজ

সকাল ১০:৪৫ ঢাকা, শুক্রবার  ২১শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

‘সাফাদির সঙ্গে জয়ের বৈঠক প্রসঙ্গে ব্যাখ্যা চায় বিএনপি’

ইসরায়েলের ক্ষমতাসীন লিকুদ পার্টির নেতা মেন্দি এন সাফাদির সঙ্গে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পুত্র সজীব ওয়াজেদ জয়ের বৈঠকের ব্যাপারে সরকারের কাছে ব্যাখ্যা চেয়ে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ‘মেন্দি এন সাফাদি নিজেই বলেছেন- সজীব ওয়াজেদ জয়ের সঙ্গে তার মিটিং হয়েছে। অথচ মাহবুব-উল আলম হানিফ এটিকে সাজানো নাটক বলছেন। জয়ের সঙ্গে বৈঠক হলে সেটি সাজানো নাটক হয়, আর আসলাম চৌধুরীর সঙ্গে দেখা হলেই সেটা আসল নাটক হয়। জনগণের কাছে এর জবাবদিহি করতে হবে।

রোববার সন্ধ্যায় রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে বিএনপির এক আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে এসব কথা বলেন মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের ৩৫তম শাহাদাৎ বার্ষিকী উপলক্ষে এ আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়।

ক্ষমতাসীনদের উদ্দেশে সভাপতির বক্তব্যে তিনি বলেন, মনে রাখবেন ক্ষমতায় আছেন বলেই সবকিছুর অধিকার কেড়ে নেবেন তা হতে পারে না। জনগণের কাছে সকল কিছুর জবাবদিহি করতে হবে। জবাব দিতে হবে।

বিএনপিকে ধ্বংস করার ষড়যন্ত্র হচ্ছে এমন দাবি করে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, আওয়ামী লীগ সরকার জনবিচ্ছিন্ন হয়ে গণতন্ত্রের মুখোশ পরে একদলীয় শাসন ব্যবস্থা দীর্ঘস্থায়ী করতেই বেগম খালেদা জিয়াসহ বিএনপির কেন্দ্র থেকে তৃণমূলের নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে একের পর এক মিথ্যা মামলা দিচ্ছে। উদ্দেশ্য, দেশনেত্রীকে রাজনীতি থেকে দূরে সরিয়ে দিয়ে বিএনপিকে ধ্বংস করা। কাজেই গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে আন্দোলন করতে হবে। আন্দোলনের মধ্য দিয়েই জনগণের দাবি আদায় করতে হবে।

বিকেল ৪টা ২২ মিনিটে অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে দর্শক সারিতে আসন গ্রহণ করেন বেগম খালেদা জিয়া।

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভীর সঞ্চালনায় এতে অন্যদের মধ্যে আরো বক্তব্য রাখেন-বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ, মির্জা আব্বাস, ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল্লাহ আল নোমান, বেগম সেলিমা রহমান, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি অধ্যাপক ড. খন্দকার মুস্তাহিদুর রহমান, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক অধ্যাপক ড. মাহবুব উল্লাহ প্রমুখ।