Sheersha Media

ব্রেকিং নিউজ

রাত ১১:৫৯ ঢাকা, বুধবার  ২১শে নভেম্বর ২০১৮ ইং

সাংবাদিক নেতা আলতাফ মাহমুদের জানাজায় মন্ত্রীবর্গ-সহকর্মীরা

বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের (বিএফইউজে-একাংশ) সভাপতি আলতাফ মাহমুদের দুটি জানাজা সম্পন্ন হয়েছে। তার প্রথম জানাজা রোববার বেলা সাড়ে ১১টায় ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে (ডিআরইউ) এবং দ্বিতীয় জানাজা বেলা ১২টায় জাতীয় প্রেসক্লাবে সম্পন্ন হয়। আলতাফ মাহমুদের জানাজায় অংশ নেন-রেলমন্ত্রী মুজিবুল হক, আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ, সাংগঠনিক সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক, তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু, খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলাম, প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান, পাট ও বস্ত্র প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম, আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক হাছান মাহমুদ, প্রাক্তন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বিএনপি নেতা আলতাফ হোসেন চৌধুরী, প্রেসক্লাবের সভাপতি শফিকুর রহমান, বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের সাবেক সভাপতি মঞ্জুরুল আহসান বুলবুল, সমকাল সম্পাদক গোলাম সারওয়ারসহ বিশিষ্ট সাংবাদিকেরা। জানাজার পর মরহুমকে শেষবারের মতো দেখে নেন আগত শুভানুধ্যায়ী ও সহকর্মীরা। এসময় তাকে শেষশ্রদ্ধাও জানান তারা। প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে তার উপ-প্রেস সচিব আশরাফুল আলম খোকনও ‍আলতাফ মাহমুদের মরদেহে শেষশ্রদ্ধা জানান। এ সময় তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেন, আলতাফ মাহমুদ চলে যাওয়ায় যে ক্ষতি হয়েছে তা অপূরণীয়। তার মতো সাংবাদিক খুব কমই আছেন। পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, জানাজার পর মরহুমের মরদেহ তার ঢাকার ভাড়া বাসায় নিয়ে যাওয়া হবে। সেখান থেকে মরদেহ নিয়ে যাওয়া হবে মরহুমের গ্রামের বাড়ি পটুয়াখালীর গলাচিপার ডাকুয়া ইউনিয়নের গাজীবাড়িতে। গাজীবাড়িতে বাবার কবরের পাশেই চিরসমাহিত করা হবে আলতাফ মাহমুদকে।