ব্রেকিং নিউজ

সকাল ৭:১৬ ঢাকা, সোমবার  ২২শে অক্টোবর ২০১৮ ইং

শেখ হাসিনার সাথে বেয়াদবি করা সেই যুবলীগ নেতা গণসংর্ধনাস্থল থেকে অস্ত্রসহ আটক

রাজধানীর খিলক্ষেতে প্রধানমন্ত্রীর গণসংর্ধনার স্থল থেকে অস্ত্রসহ যুবলীগ নেতাকে আটক করেছে পুলিশ। তার কাছ থেকে একটি বিদেশি পিস্তল পাওয়া গেছে।
আটক যুবলীগ নেতার নাম রফিকুল ইসলাম রফিক। তিনি খিলক্ষেত থানা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক। তার দাবি অস্ত্রটি লাইসেন্স করা।
খিলক্ষেত থানার অপারেশন অফিসার গোলাম ফারুক গণমাধ্যমকে জানান, শনিবার দুপুর সোয়া ১টার দিকে বিমানবন্দর থেকে প্রধানমন্ত্রী গণভবনে যাওয়ার আগমুহূর্তে রফিকুল ইসলাম রফিক অস্ত্র নিয়ে রাস্তায় অবস্থান নেয়।
তিনি জানান, পরে একটি গোয়েন্দা সংস্থার সহযোগিতায় পুলিশ তাকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে। থানায় আনার পর রফিক দাবি করে অস্ত্রটি তার লাইসেন্স করা।
ফারুক জানান, ওই যুবলীগ নেতাকে অস্ত্রের লাইসেন্স ও যাবতীয় কাগজপত্র থানায় জমা দিতে বলা হয়েছে। সেগুলো ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা যাচাই করে সিদ্ধান্ত নেবেন।
স্থানীয়রা জানান, ১৯৯৪ সালের ৩ জানুয়ারি রফিক তৎকালীন বিরোধীদলীয় নেত্রী শেখ হাসিনা লক্ষ্য করে চেয়ার ছুঁড়ে মারেন। তার ওই ছবি  বিভিন্ন দৈনিকে ছাপা হয়। এছাড়াও রফিকের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের অভিযোগ রয়েছে।