ব্রেকিং নিউজ

সকাল ৬:০৭ ঢাকা, বুধবার  ১৯শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

নিহত অধ্যাপক এ এম রেজাউল করিম সিদ্দিকী

শিক্ষক রেজাউল হত্যা: রাবিতে অবরোধ-বিক্ষোভ, ক্লাস বর্জন

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের অধ্যাপক ড. এএফএম রেজাউল করিম সিদ্দিকী হত্যার প্রতিবাদ ও বিচার দাবিতে মঙ্গলবার প্রধান ফটকের সামনে ঢাকা-রাজশাহী মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করছে শিক্ষার্থীরা।

বেলা সাড়ে ১১টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদুল্লাহ কলা ভবনের সামনে থেকে বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে প্রধান ফটকের সামনে আসে শিক্ষার্থীরা। পরে তারা মহাসড়কো দু’পাশে দুই কিলোমিটার দীর্ঘ মানববন্ধনে দাঁড়ায়। কর্মসূচিতে বিভিন্ন বিভাগের প্রায় দেড় হাজার শিক্ষার্থী অংশ নিয়েছেন।

এর আগে হত্যাকান্ডের চতুর্থ দিনেও সকাল থেকে ক্লাস বর্জন ও বিক্ষোভ-সমাবেশের কর্মসূচিতে প্রতিবাদ মুখর হয়ে ওঠে ক্যাম্পাস। শিক্ষক সমিতি ৭ দিনের আল্টিমেটাম দিয়ে কর্মসূচি স্থগিত করলেও ইংরেজি বিভাগ ও বিভিন্ন সংগঠন কর্মসূচি চালিয়ে যাচ্ছে।

মঙ্গলবার সকাল থেকে প্রগতিশীল ছাত্রজোট ও কেন্দ্রীয় সাংস্কৃতিক জোটের আহ্বানে ক্লাস বর্জন কর্মসূচি শুরু হয়। ফলে টানা চতুর্থ দিনের মতো বিশ্ববিদ্যালয়েল ৫৭টি বিভাগের কোনো বিভাগেই ক্লাস হয়নি।

সকাল সাড়ে ৯টায় ক্যাম্পাসে প্রতিবাদী র‌্যালি বের করে ইংরেজি বিভাগের শিক্ষার্থীরা। র‌্যালিটি ক্যাম্পাস প্রদক্ষিণ করে সিনেট ভবনের সামনে অবস্থান নেয়। পরে তারা বিভাগের সামনে গিয়ে সমাবেশে মিলিত হয়।

সাড়ে ১০টায় প্যারিস রোডে মানববন্ধন করে একাত্তরের ঘাতক-দালাল নির্মূল কমিটি। রাবি ঘাতক-দালাল নির্মূল কমিটির সভাপতি মতিউর রহমান মতুর্জার সভাপতিত্বে মানববন্ধন চলাকালে বক্তব্য দেন বাংলা বিভাগের অধ্যাপক ড. সুজিত সরকার, ক্রপ সায়েন্স এন্ড এগ্রোনমি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক দুলাল আলী মোল্যা, চারুকলা বিভাগের প্রভাষক হুমায়ন কবির, ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির রাজশাহী মহানগর সাধারণ সম্পাদক মনিরুজ্জামান উজ্জল, জেলা সভাপতি শাহজাহান বরজাহান প্রমূখ।

সমাবেশে অধ্যাপক রেজাউল হত্যার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানানো হয়। পুলিশ প্রশাসনের কাছে নৃশংস এ হত্যাকা-ের ঘাতকদের দ্রুত চিহ্নিত করে শাস্তির দাবি জানায় তারা।
 
উল্লেখ্য, গত শনিবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে রাজশাহীর বোয়ালিয়া থানাধীন শালাবাগান এলাকার বটতলা মোড়ে মহাসড়কের কাছাকাছি এক গলিতে অজ্ঞাত সন্ত্রাসীদের ধারালো অস্ত্রের আঘাতে নিহত হন অধ্যাপক রেজাউল করিম।