শীর্ষ মিডিয়া

ব্রেকিং নিউজ

সকাল ৭:০৯ ঢাকা, বৃহস্পতিবার  ১৩ই ডিসেম্বর ২০১৮ ইং

“লঘুচাপের প্রভাবে বৃষ্টিপাতের প্রবণতা আরো বাড়তে পারে”

পূর্ব মধ্য বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন এলাকায় একটি লঘুচাপ সৃষ্টি হয়েছে। স্থল নিম্নচাপটি মহারাষ্ট্র ও এর তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে। এর ফলে রোববার ঢাকাসহ দেশের অনেক স্থানে মাঝারি ও ভারী বৃষ্টি শুরু হয়েছে। বৃষ্টিপাতের প্রবণতা আরো বাড়তে পারে বলে জানায় আবহাওয়া অফিস।

এদিকে ভোর থেকে রাজধানীতে একটানা বৃষ্টি হচ্ছে। গত কয়েক দিনের প্রচণ্ড গরমের পর এই বৃষ্টি কিছুটা স্বস্তি ফিরিয়ে দিলেও একটানা বৃষ্টিতে নগরজীবনে দুর্ভোগ নেমে এসেছে। শনিবার ভোর থেকে শুরু হয়ে রোববার সকাল পর্যন্ত টানা বর্ষণে ঢাকা শহরের বিভিন্ন এলাকায় পানি জমে গেছে। শহরের প্রধান সড়কগুলোসহ পাড়া-মহল্লার অলিগলির রাস্তাঘাটে পানি জমে গেছে। এতে রাজধানী জুড়ে সৃষ্টি হয় তীব্র যানজট। পাশাপাশি পায়ে হাঁটতে গেলে কাদা পানি ও খানাখন্দকে ভরা রাস্তায় জনজীবনে নেমে আসে চরম দুর্ভোগ। স্কুল, মাদ্রাসা, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-ছাত্রীসহ অফিস আদালতগামী মানুষ বৃষ্টি ও যানজট উপেক্ষা করেই নিজ নিজ লক্ষ্যে যেতে হচ্ছে।
আবহাওয়া অফিস জানায়, পূর্ব মধ্য বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন এলাকায় একটি লঘুচাপ সৃষ্টি হয়েছে। মৌসুমী বায়ুর বর্ধিতাংশের অক্ষ গুজরাট, মধ্যপ্রদেশ, মহারাষ্ট্র, উড়িষ্যা, গাঙ্গেয় পশ্চিম বঙ্গ ও বাংলাদেশের মধ্যাঞ্চল হয়ে উত্তর পূর্ব দিকে আসাম পর্যন্ত বিস্তৃত। মৌসুমী বায়ু বাংলাদেশের উপর মোটামুটি সক্রিয় এবং উত্তর বঙ্গোপসাগরে মাঝারি অবস্থায় বিরাজ করছে।
রোববার সকাল ৯টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘন্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, ঢাকা, খুলনা, বরিশাল, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের অনেক জায়গায় এবং রাজশাহী ও রংপুর বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় অস্থায়ী দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরণের বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টিপাত হতে পারে। সেই সঙ্গে খুলনা, বরিশাল ও চট্টগ্রাম বিভাগের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরণের ভারি বর্ষণ হতে পারে। সারাদেশে দিনের তাপমাত্রা ১ থেকে ২ ডিগ্রি সে. এবং রাতের তাপমাত্রা সামান্য হ্রাস পেতে পারে।