Sheersha Media

ব্রেকিং নিউজ

রাত ১০:৩৪ ঢাকা, বুধবার  ১৪ই নভেম্বর ২০১৮ ইং

রাশিয়া
বিমানবাহী রুশ রণতরী এডমিরাল কুজনেটসভ। ইংলিশ চ্যানেল অতিক্রম করে চলেছে সিরিয়ার উপকূলে।

রাশিয়ার যুদ্ধজাহাজ যাচ্ছে সিরিয়ার ভূমধ্যসাগরীয় উপকুলে

রাশিয়ার এক বিমানবাহী যুদ্ধজাহাজের একটি বহর এখন ইংলিশ চ্যানেল অতিক্রম করছে। বিমানবাহী রুশ রণতরী ‘এডমিরাল কুজনেটসভ’ এবং অন্যান্য জাহাজের এই বহরটি যাচ্ছে সিরিয়ার ভূমধ্যসাগরীয় উপকুলে।

যদিও এটি আন্তর্জাতিক জলসীমা দিয়ে ইংলিশ চ্যানেল অতিক্রম করছে, তারপরও এ নিয়ে অস্বস্তি তৈরি হয়েছে ব্রিটেনে। দুটি ব্রিটিশ যুদ্ধজাহাজ দূর থেকে এই রুশ রণতরীকে অনুসরণ করছে।

সিরিয়ার যুদ্ধে রাশিয়া যে ভূমিকা নিয়েছে, তা নিয়ে যুক্তরাষ্ট্র এবং পশ্চিম ইউরোপের দেশগুলোর সঙ্গে তাদের দ্বন্দ্ব চলছে।

ব্রিটিশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রী মাইকেল ফ্যালন বলেছেন, ব্রিটেনকে নিরাপদ রাখার জন্য তারা এই রুশ যুদ্ধজাহাজের বহরের ওপর সতর্ক নজর রাখবেন।

এডমিরাল কুজনেটসভকে অনুসরণের জন্য ব্রিটিশ যুদ্ধজাহাজ এইচএমএস ডানকান এবং এইচএমএস রিচমন্ড গত মঙ্গলবারই ইংলিশ চ্যানেলে পাঠানো হয়।

এডমিরাল কুজনেটসভ হচ্ছে রুশ নৌবাহিনীর একমাত্র যুদ্ধবিমানবাহী রণতরী। ব্রিটেনের এরকম কোন বিমানবাহী রণতরী নেই।

রাশিয়া কেন সিরিয়ার লড়াইয়ে এরকম বিশাল যুদ্ধজাহাজ পাঠাচ্ছে তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে।

একটি রুশ পত্রিকা ‘কমসোমলস্কায়া প্রাভদা’র ভাষ্য অনুযায়ী, এই জাহাজ বহর ভূমধ্যসাগরে কোন প্রমোদ ভ্রমণে যাচ্ছে না। সিরিয়ায় প্রেসিডেন্ট আসাদের বিরোধী বিদ্রোহী এবং জঙ্গী গোষ্ঠীগুলোর অবস্থানে হামলা চালানোর জন্য এই যুদ্ধজাহাজের বহর ব্যবহার করা হবে।

তবে সামরিক বিশ্লেষকরা বলছেন, শুধু সিরিয়ার যুদ্ধে নিজেদের সমর শক্তি বাড়ানোই রাশিয়ার লক্ষ্য নয়। একই সঙ্গে রাশিয়া পশ্চিমা দেশগুলোর কাছে এরকম একটা বার্তা দিতে চাইছে যে, তারা যেখানে খুশি তাদের এই যুদ্ধজাহাজ পাঠাতে পারে। সেই ক্ষমতা তাদের আছে। বিবিসি