ব্রেকিং নিউজ

সকাল ৯:০৪ ঢাকা, রবিবার  ২৩শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

আইজিপি এ কে এম শহীদুল হক

‘মাদকবাহী ট্রাক আটকাতে গিয়ে নিহত দুই বীর পুলিশ সদস্য পুলিশ বাহিনীর গর্ব-দেশের গর্ব’

চাঁপাইনবাবগঞ্জে মাদকবাহী ট্রাক মোটরসাইকেল নিয়ে ধাওয়া করে আটকানোর চেষ্টাকালে ওই ট্রাকের চালকের চাপায় মর্মান্তিকভাবে নিহত শিবগঞ্জ থানার সাব ইন্সপেক্টর সাদেকুল ইসলাম ও শিক্ষানবিশ সার্জেন্ট আতাউল ইসলামের করুণ মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন মহাপুলিশ পরিদর্শক (আইজিপি) এ কে এম শহীদুল হক।  শুক্রবার পুলিশ সদর দফতর থেকে পাঠানো এক শোক বার্তায় পুলিশ মহাপরিদর্শক (আইজি) বলেন, সাহসিকতার সঙ্গে দায়িত্ব পালনকারী ওই দুই বীর পুলিশ সদস্য পুলিশ বাহিনীর গর্ব, দেশের গর্ব।
মাদকের বিরুদ্ধে পুলিশের অবস্থান ‘জিরো টলারেন্স’ উল্লেখ করে মাদক উদ্ধার অভিযান জোরদার করার জন্য পুলিশ কর্মকর্তা ও সদস্যদের প্রতি আহ্বান জানান তিনি। দুই পুলিশ সদস্যের মৃত্যুকে মাদক নির্মূলে তাদের ‘সর্বোচ্চ আত্মত্যাগ’ আখ্যায়িত করে তা অন্য পুলিশ সদস্যদের জন্য অনুকরণীয় দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে বলে মন্তব্য করেছেন তিনি।
বৃহস্পতিবার ভোরে চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ উপজেলার কানসাট পল্লী বিদ্যুৎ মোড়ে মাদকের চালান নিয়ে আসছে এমন খবর পেয়ে একটি ট্রাক আটকাতে যান শিবগঞ্জ থানার এসআই সাদেকুল ইসলাম ও সার্জেন্ট আতাউল ইসলাম।
এই দুই পুলিশ সদস্য থামার সংকেত দেয়ার পর চালক ট্রাক না থামানোয় মোটরসাইকেল নিয়ে ধাওয়া করে এক পর্যায়ে সামনে গিয়ে ট্রাকের গতিরোধ করেন। ট্রাকচালক এ সময় তাদের চাপা দিয়ে পালিয়ে গেলে ঘটনাস্থলেই তাদের মৃত্যু হয়। পরে ওইদিন বেলা ১১টার দিকে শিবগঞ্জের কশিয়াবাড়ি থেকে ১৪৫০ বোতল ফেনসিডিলের বোতল বোঝাই ট্রাকসহ চালক সিরাজ আলীকে আটক করা হয়।
শোকবার্তায় আইজি শহীদুল হক বলেন, কমিউনিটি পুলিশিংয়ের মাধ্যমে সমাজের সকল শ্রেণি-পেশার মানুষ একত্রে মাদকের বিরুদ্ধে সর্বাত্মক প্রতিরোধ আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে।
এছাড়া পরিকল্পিতভাবে পুলিশ হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িতদের বিরুদ্ধে কঠোর আইনি ব্যবস্থার মাধ্যমে তাদের সর্বোচ্চ শাস্তি নিশ্চিত করা হবে বলে মন্তব্য করেন পুলিশ প্রধান।