ব্রেকিং নিউজ

ভোর ৫:০০ ঢাকা, শুক্রবার  ২১শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

কামরুল ইসলাম
খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট মো. কামরুল ইসলাম, ফাইল ফটো

‘ভেজাল উৎপাদনের বিরুদ্ধে অচিরেই ব্যবস্থা’

খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম বলেছেন, ভেজালযুক্ত খাদ্যপণ্য সামগ্রী উৎপাদনের সঙ্গে যুক্ত প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে অচিরেই ব্যবস্থা নেয়া হবে।

তিনি বলেন, খাদ্যপণ্য সামগ্রী স্বাস্থ্যসম্মতভাবে উৎপাদিত হচ্ছে কিনা তা প্রতিষ্ঠানগুলোকে নিশ্চিত করতে হবে। এক্ষেত্রে জিরো টলারেন্স দেখানো হবে।

মন্ত্রী আজ ঢাকা বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয় কর্তৃক ইস্কাটনের বিয়াম মিলনায়তনে ‘নিরাপদ খাদ্য : খাদ্যে ভেজাল ও দূষণ প্রতিরোধে সামাজিক আন্দোলন’ শীর্ষক কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে একথা বলেন।

তিনি বলেন, নিরাপদ খাদ্য প্রাপ্তি জনগণের সাংবিধানিক অধিকার। ভেজালমুক্ত খাদ্য নিশ্চিতকরণে তিনি ব্যবসায়ী এবং ভোক্তাসাধারণের প্রতি সহযোগিতার হাত প্রসারিত করার আহ্বান জানান।

মন্ত্রী বলেন, বর্তমানে বাংলাদেশ নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষ ভেজাল খাদ্যের বিষয়ে সচেতনতা সৃষ্টি করে যাচ্ছে। যারা জনগণকে ভেজাল খাওয়ায় তাদের বিরুদ্ধে খুব শীঘ্রই অভিযান পরিচালনা করা হবে।

তিনি বলেন, দেশের জনগণকে নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে বিশ্বমানের খাদ্য নিরাপত্তা দিতে সরকার বদ্ধপরিকর।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে খাদ্য মন্ত্রণালয়ের সচিব এ এম বদরুদ্দোজা বলেন, খাদ্যে ভেজাল দেয়ার মূল উদ্দেশ্য হলো অন্যায়ভাবে মুনাফা অর্জন করা। আর এর শিকার হচ্ছে সাধারণ জনগণ। তিনি বলেন, জনগণের স্বাস্থ্য ভাল না রাখা গেলে ২০২১ সালের মধ্যে মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হবার অগ্রযাত্রা ব্যাহত হবে।

ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার হেলালুদ্দীনের সভাপতিত্বে কর্মশালায় অন্যান্যের মধ্যে খাদ্য মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি মো. আব্দুল ওয়াদুদ দারা, বাংলাদেশ নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষের চেয়ারমানসহ ব্যবসায়ী সমিতির নেতৃবৃন্দ ও সাধারণ ভোক্তাগণ উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply