শীর্ষ মিডিয়া

ব্রেকিং নিউজ

সকাল ১০:২৯ ঢাকা, বৃহস্পতিবার  ১৩ই ডিসেম্বর ২০১৮ ইং

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের

‘ভুয়া জম্মদিন পালনের জন্য ক্ষমা না চাইলে সংলাপ নয়’

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের শাহদাৎ বার্ষিকীতে ভুয়া জম্মদিন পালন করার জন্য ক্ষমা না চাইলে বিএনপির সঙ্গে সংলাপের প্রশ্নই আসে না।

তিনি বলেন, ‘জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জম্মদিনে যারা ভুয়া জম্মদিন বানিয়ে কেক কেটে আনন্দ উল্লাস করে তাদের সঙ্গে আমাদের সংলাপ হতে পারে না। বিএনপি নেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার কয়টি জম্মদিন তা কেউ জানে না।’

সেতুমন্ত্রী বলেন, পাসপোর্টে তার এক জম্মদিন, সার্টিফিকেটে আরেক জম্মদিন। এভাবে তার পাঁচটি জম্মদিন রয়েছে। তার এতগুলো জম্মদিনের মধ্যে আসল জম্মদিন কোনটি তা কেউ জানে না।

ওবায়দুল কাদের আজ বিকেলে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্র (টিএসসি) মিলনায়তনে ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে বঙ্গবন্ধু সমাজকল্যাণ পরিষদের উদ্যোগে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন।

বঙ্গবন্ধু সমাজকল্যাণ পরিষদের সহ-সভাপতি মো. জহির উদ্দিন ভূঁইয়ার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য রাশিদুল আলম, সাংগঠনিক সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম এমপি, বঙ্গবন্ধু সমাজকল্যাণ পরিষদের সাধারণ সম্পাদক এস এম বাহালুল মজনুন চুন্নু, আওয়ামী লীগের উপ-দপ্তর সম্পাদক ব্যরিস্টার বিপ্লব বড়–য়া, বাংলাদেশ ছাত্রলীগের নব নির্বাচিত সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন ও সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী।

ওবায়দুল কাদের বলেন, যারা আজ গণতন্ত্রের দোহাই দিয়ে সংলাপের জন্য মায়াকান্না করছেন তারা কি আমাদের অশ্রুপাতের কথা ভূলে গেছেন? বঙ্গবন্ধুকে কারা হত্যা করেছেন এবং এ হত্যাকান্ডের নেপথ্য নায়ক কারা সেটাও আমাদের জানা রয়েছে।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর হত্যাকারীদের কারা বিদেশ পাঠাতে সহায়তা করেছেন, বিদেশে বাংলাদেশ দূতাবাসে প্রাইজ পোস্টিং দিয়েছেন, ইনডেমনিটি জারি করে বঙ্গবন্ধুর হত্যার বিচার বন্ধ করেছিলেন সেটাও আমাদের জানা রয়েছে। তাহলে কিভাবে তাদের সঙ্গে আওয়ামী লীগের সংলাপ হয়?

সেতুমন্ত্রী কাদের বলেন, যারা বঙ্গবন্ধুকে নিমর্মভাবে হত্যা করেছে, ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট তার কন্যা আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনাকে প্রাইম টার্গেট করে গ্রেনেড হামলা চালিয়েছে তাদের সঙ্গে কিভাবে আমাদের সংলাপ হয়? গণতন্ত্রের স্বার্থে বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গত জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে সংলাপের আহবান জানিয়ে যখন ফোন করেছিলেন তখন বেগম খালেদা জিয়া যে অশালীন ভাষায় বঙ্গবন্ধুর কন্যার সঙ্গে কথা বলেছিলেন তা এখনো কেউ ভুলে যায় নি।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যখন সন্তান হারা মাকে সান্তনা দেওয়ার জন্য বেগম খালেদা জিয়ার সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলেন তখন খোলা দরজা বন্ধ করে দেয়া হয়েছিল। আর এভাবেই সেদিন বিএনপিই সংলাপের দরজা বন্ধ করেছিল।

ওবায়দুল কাদের আরো বলেন, যে দলের প্রতিষ্ঠাতা বঙ্গবন্ধুর হত্যার নেপথ্য নায়ক, যে দলের চেয়ারপার্সন ও ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে প্রাইম টার্গেট করে গ্রেনেড হামলা চালিয়েছিল তাদের সঙ্গে কিভাবে আওয়ামী লীগের সংলাপ হবে। গণতন্ত্রের জন্য যারা মায়াকান্না করে সংলাপের দাবী করছেন তারা কি এর জবাব দেবেন।