ভারতীয় যুদ্ধবিমান
ভারতীয় যুদ্ধবিমান, সংগৃহীত পুরাতন ছবি

ভারতীয় ২ যুদ্ধবিমান ভূপাতিত করেছে পাকিস্তান

কাশ্মীরের আকাশ থেকে দুটি ভারতীয় যুদ্ধবিমান গুলি করে ভূপাতিত করেছে পাকিস্তান। পাকিস্তানের এক সামরিক মুখপাত্রের বরাতে বার্তা সংস্থা এএফপি এ খবর দিয়েছে।

এছাড়া একজন ভারতীয় পাইলটকে আটক করার কথাও জানা গেছে।

পাকিস্তানি সামরিক বাহিনীর মুখপাত্র মেজর জেনারেল আসিফ গফুর টুইটারে বলেন, পাকিস্তান সীমান্তে ভারতীয় বিমান বাহিনীর দুটি বিমান গুলি ধ্বংস করা হয়েছে। এছাড়া ভারতের অংশেও আরেকটি বিধ্বংস্ত হয়েছে।

এর আগে ভারতনিয়ন্ত্রীত কাশ্মীরের আকাশসীমা লঙ্ঘন করেছে পাকিস্তানি যুদ্ধ বিমান। বুধবার এসব বিমান ভারতীয় আকাশে ঢুকে পড়লেও নিজ সীমায় ফিরে যেতে বাধ্য করা হয়েছে বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা এএফপির।

এর আগে মঙ্গলবার নিয়ন্ত্রণ রেখা (লাইন অব কন্ট্রোল) পেরিয়ে পাকিস্তান নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরের বালাকোটে বোমা হামলা চালিয়েছে ভারতীয় বিমান বাহিনী।

স্থানীয় সময় ভোর রাতে ১২টি মিরেজ-২০০০ জঙ্গিবিমান জঈশ-ই-মোহাম্মদ, হিজবুল্লাহ মুজাহেদীন ও লস্কর-ই-তৈয়েবার স্থাপনা টার্গেট করে হামলা চালায়।

বোমাবর্ষণ করা হয়েছে মুজাফফরাবাদ ও ছাকোতি শহরেও। এ সময় এক হাজার কেজি বোমা ফেলা হয়।

মঙ্গলবার পাল্টা হামলার হুমকি দিয়েছে পাকিস্তানও। ভারতের হামলার পর পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান জাতীয় নিরাপত্তা কমিটির সঙ্গে জরুরি বৈঠক করেন।

তিনি শীর্ষস্থানীয় মন্ত্রী, সেনাপ্রধান ও উচ্চপদস্থ সেনা কর্মকর্তাসহ সশস্ত্র বাহিনীকে যে কোনো পরিস্থিতির জন্য প্রস্তুত থাকতে বলেছেন। পাকিস্তান সেনাবাহিনীর মুখপাত্র মেজর জেনারেল আসিফ গফুর বলেছেন, ‘বুধবার (আজ) পার্লামেন্টে যৌথ অধিবেশন হবে।

এরপরই পরমাণু অস্ত্রবিষয়ক কমিটি ন্যাশনাল কমান্ড অথরিটির (এনসিএ) সঙ্গে বৈঠকে বসবেন প্রধানমন্ত্রী।’ এ হামলায় ভারত তিনশ’ নিহতের যে দাবি করেছে পাকিস্তান তা প্রত্যাখ্যান করে। এদিকে হামলার পর থেকে ভারতের সব বিমানবন্দরে সতর্কতা জারি করা হয়েছে।