Sheersha Media

ব্রেকিং নিউজ

রাত ১:০৩ ঢাকা, বুধবার  ১৪ই নভেম্বর ২০১৮ ইং

আবুল মাল আব্দুল মুহিত
অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত, ফাইল ফটো

ব্যাংক জালিয়াতির সঙ্গে জড়িত দুষ্টুলোকেরা কোনোভাবেই ছাড় পাবে না

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেছেন, ব্যাংক জালিয়াতির সঙ্গে জড়িতরা কেউ কোনোভাবেই ছাড় পাবে না। ঘটনার সঙ্গে জড়িত দুষ্টুলোকেরা যাতে দেশ ছেড়ে পালিয়ে যেতে না পারে, সেজন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।

মঙ্গলবার সংসদে বাজেট পাসের আগে ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের জন্য মঞ্জুরি বরাদ্দের ওপর আনা ছাঁটাই প্রস্তাবের জবাবে অর্থমন্ত্রী একথা বলেন।
অর্থমন্ত্রী বলেন, জালিয়াতির সঙ্গে জড়িতদের আগে কেউ স্পর্শ পর্যন্ত করতে পারেনি। কিন্তু আমরা ছাড় দেইনি। মামলা করেছি, জড়িতদের জেলে নিয়েছি, বিচারের মুখোমুখি করেছি। এরা কেউ ছাড় পাবে না।
আটজন সংসদ সদস্য এ খাতে বরাদ্দের বিরুদ্ধে ছাঁটাই প্রস্তাব দেন।  ছাঁটাই প্রস্তাবে জাতীয় পার্টি ও স্বতন্ত্রসহ আটজন সংসদ সদস্য বিভিন্ন ব্যাংকে হাজার হাজার কোটি টাকা লুটপাটের ঘটনায় শাস্তিমূলক ব্যবস্থা না নেয়ায় সরকারের সমালোচনা করেন।
হাজী সেলিম বলেন, ব্যাংক থেকে হাজার কোটি টাকা লুটপাট হয়েছে কিন্তু কোনো বিচার হয়নি।ব্যাংকের টাকা লুটপাটের কোনো হিসাব নেই। খেলাপি ঋণ উদ্ধারের কোনো ব্যবস্থা নেই। ব্যাংক ও আর্থিক বিভাগ দায়িত্ব পালনে ব্যর্থ হয়েছে।
জবাবে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেন, ব্যাংকিং ব্যবস্থায় আস্থা-বিশ্বাস অর্জন খুব জরুরি। যখন আস্থার ঘাটতি দেখা যায়, তখনই সমস্যা হয়। সোনালী ব্যাংক ও বেসিক ব্যাংকে কিছুটা ঘাটতি রয়েছে।
অর্থমন্ত্রী বলেন, সোনালী ব্যাংকের ঘটনায় একজন ব্যবস্থাপনা পরিচালককে জেলে নেয়া হয়েছে। আরেকজন এমডি জেলে রয়েছেন। জালিয়াতির আসামিদের ছাড় দেয়া হবে না। কোনো ব্যাংক থেকে যে ঋণ নেয়, আর যে ঋণ দেয়- তারা সমান দায়ী।
মন্ত্রী বলেন, ইতোমধ্যে বেসিক ব্যাংকের ঘটনায় বেশকিছু পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে। নতুন পরিচালনা পর্ষদ গঠন করা হয়েছে। ওই পর্ষদ বিষয়টি অনুসন্ধান করছে। পরিচালনা পর্ষদের রিপোর্ট পাওয়ার পর সেই অনুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে।