ব্রেকিং নিউজ

সকাল ৮:৪৬ ঢাকা, বুধবার  ১৯শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

বুরুন্ডির নির্বাচন অবাধ ও বিশ্বাসযোগ্য হয়নি : জাতিসংঘ

বিরোধী দলের বয়কট ও নানা সহিংসতার মধ্য দিয়ে বুরুন্ডির নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ায় এটি অবাধ ও বিশ্বাসযোগ্য হয়নি। রাজধানীতে সহিংসতায় ছয় জন মারা যাওয়ার একদিন পর বৃহস্পতিবার জাতিসংঘ পর্যবেক্ষকরা একথা জানান।
বুরুন্ডিতে কয়েক মাসের টালমাতাল পরিস্থিতির প্রেক্ষাপটে নির্বাচন স্থগিত রাখতে জাতিসংঘ মহাসচিব বান কি-মুনের আহবান সত্ত্বেও সোমবার দেশটির পার্লামেন্ট ও স্থানীয় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়।
জাতিসংঘ নির্বাচন পর্যবেক্ষণ মিশনের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, একটি উত্তেজনাপূর্ণ রাজনৈতিক বিশৃংখলার মধ্য দিয়ে এ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় দেশের বিভিন্ন অংশে ব্যাপক আতংকজনক পরিস্থিতি বিরাজ করতে দেখা যায়।
পর্যবেক্ষক মিশনের নয় পাতার ওই প্রতিবেদনে আরো বলা হয়, বুজুম্বরার বেশীর ভাগ এলাকায় নির্বাচন শুরুর আগেই ব্যাপক সহিংসতা ও বিস্ফোরণ ঘটতে দেখা যায়।
এসব ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে পর্যবেক্ষণ মিশন জানায়, এ সময় দেশটিতে অবাধ, নিরপেক্ষ ও সবার কাছে গ্রহণযোগ্য নির্বাচনের পরিবেশ ছিল না।
এ পরিস্থিতিতে পার্লামেন্ট নির্বাচনের ফলাফল এখন পর্যন্ত প্রকাশ করা সম্ভব হয়নি। এদিকে বেলজিয়াম এ নির্বাচনের ফলকে স্বীকৃতি দেবে না বলে জানিয়েছে। বৃহস্পতিবার আন্তর্জাতিক চাপের মুখে যুক্তরাষ্ট্র ১৫ জুলাই অনুষ্ঠেয় বুরুন্ডির প্রেসিডেন্ট নির্বাচন পর্যন্ত বিলম্বিত করার আহবান জানিয়েছে।
বুধবার রাজধানী বুজুম্বরায় সংঘর্ষে বিরোধী দলের শক্ত ঘাঁটি সিটিবোক এলাকায় ছয়জন মারা যায়। প্রেসিডেন্ট পিয়েরি নকুরুনজিজার শাসনের বিরুদ্ধে সেখানে কয়েক সপ্তাহ ধরে বিক্ষোভ চলতে দেখা যাচ্ছে।
পুলিশ জানায়, সেখানে পুলিশের টহল দল লক্ষ্য করে গ্রেনেড ছুড়ে মারা হয়। এতে দুই পুলিশ কর্মকর্তা আহত হন। এছাড়া নির্বাচনী সহিংসতাকে কেন্দ্র করে সিটিবোকে বন্দুক যুদ্ধে এক পুলিশ কর্মকর্তা মারা যায়।
সশস্ত্র গ্রুপের সদস্য হিসেবে পরিচিত অপর পাঁচজন নিহত হয়েছে। তবে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, পুলিশ তাদেরকে নির্মমভাবে হত্যা করেছে।