ব্রেকিং নিউজ

রাত ১২:৫১ ঢাকা, রবিবার  ২৩শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

বিমান হামলায় আইএস’র রাসায়নিক অস্ত্র বিশেষজ্ঞ নিহত

Like & Share করে অন্যকে জানার সুযোগ দিতে পারেন। দ্রুত সংবাদ পেতে sheershamedia.com এর Page এ Like দিয়ে অ্যাক্টিভ থাকতে পারেন।

 

যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বাধীন জোটের বিমান হামলায় জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেটের (আইএস) এক রাসায়নিক অস্ত্র বিশেষজ্ঞ নিহত হয়েছেন। তিনি এক সময় সাদ্দাম হোসেনের পক্ষে কাজ করেছেন। শুক্রবার মার্কিন সামরিক কর্মকর্তারা এ কথা জানান।
এ ব্যাপারে মার্কিন সামরিক বাহিনীর দেয়া এক বিবৃতি থেকে জানা যায়, গত ২৪ জানুয়ারি ইরাকের মসুলে বিমান হামলায় আবু মালিক নিহত হন। তিনি আইএস জঙ্গিদের রাসায়নিক অস্ত্রের সক্ষমতা লাভে তার প্রশিক্ষণকে কাজে লাগাতেন।
মার্কিন সেন্ট্রাল কমান্ড জানায়, সাদ্দাম সরকারের আমলে একটি রাসায়নিক অস্ত্র উৎপাদন কেন্দ্রে মালিক কাজ করতেন। ২০০৫ সালে তিনি ইরাকে আল-কায়েদার সঙ্গে যুক্ত হন। এরপর তিনি আইএস জঙ্গিদের সঙ্গে যোগ দেন।
যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক বাহিনী মনে করে, তার মৃত্যুতে আইএসের সন্ত্রাসী কার্যক্রম এবং রাসায়নিক অস্ত্রের সম্ভাব্য উৎপাদন ও ব্যবহারের ক্ষমতা সাময়িকভাবে হলেও বিঘিœত হবে।
মার্কিন কর্মকর্তারা আগে কখনো গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি হিসেবে মালিকের নাম প্রকাশ করেননি।
প্রতিরক্ষা কর্মকর্তা বলেন, ‘আবু মালিক ২০০৫ সালে রাসায়নিক অস্ত্র উৎপাদন কার্যক্রম এবং ইরাকি কায়েদার সাথে মসুলে বিভিন্ন হামলার পরিকল্পনার সাথে জড়িত ছিলেন।তিনি সালিহ জসিম মোহাম্মদ ফালাহ আল-সাবাবি নামেও পরিচিত ছিলেন।’
নাম প্রকাশ না করার শর্তে ওই কর্মকর্তা বলেন, ‘তার প্রশিক্ষণ ও অভিজ্ঞতার ভিত্তিতে বলা যায়, তিনি ক্ষতিকর ও রাসায়নিক অস্ত্র তৈরীতে সক্ষম ছিলেন।’
কর্মকর্তা বলেন, ‘আমরা জানি আইএসআইএল রাসায়নিক অস্ত্র তৈরীর সক্ষমতা অর্জনের প্রচেষ্টা চালাচ্ছে। তবে এখন পর্যন্ত রাসায়নিক অস্ত্র তৈরীর সক্ষমতা অর্জন করতে পেরেছে কিনা সেব্যাপারে আমরা নিশ্চিত হতে পারিনি।
উল্লেখ্য, মার্কিন নেতৃত্বাধীন জোট গত ৮ আগস্ট থেকে সিরিয়া ও ইরাকে আইএস গ্রুপের বিরুদ্ধে ২ হাজারের বেশী বিমান হামলা চালায়। এসময় জঙ্গি নেতাদের লক্ষ্য করে বোমা হামলাও চালানো হয়।