বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।
নোয়াখালীতে ধর্ষণের শিকার নারীকে দেখতে যান বিএনপি মহাসচিব। ছবি: সংগৃহীত

বিচারের দাবিতে সোচ্চার থাকবো, ধর্ষিতাকে ফখরুল

নোয়াখালীর সুবর্ণচরে ধর্ষণের শিকার নারীর মাথায় হাত রেখে অভয় দিলেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। এ সময় তাকে সান্ত্বনা দিয়ে এই ঘটনার বিচারের দাবিতে সোচ্চার থাকার প্রতিশ্রুতিও দিয়েছেন।

শনিবার সকালে ঢাকা থেকে রওনা হয়ে শরিক দলের নেতাদের নিয়ে নোয়াখালীতে যান বিএনপি মহাসচিব।

নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে আবেগ জড়িত কণ্ঠে মির্জা ফখরুল বলেন, নোয়াখালীর সুবর্ণচরে যে ঘটনা (সংঘবদ্ধ ধর্ষণ) ঘটেছে, এটা যারা ঘটিয়েছে এবং এর পেছনে যারা রয়েছে তাদের প্রত্যেকের বিচার করতে হবে। আওয়ামী লীগকে জাতির কাছে ক্ষমা চাইতে হবে। দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা করতে হবে।

সান্ত্বনা জানাতে গিয়ে কেঁদে ফেলেন মির্জা ফখরুল। তাকে জড়িয়ে ধরে কাঁদতে থাকেন ওই নারীর অটোচালক স্বামীও। এ সময়ে তার পাশে থাকা ওই আসনের সাবেক সংসদ সদস্য ও বিএনপির কেন্দ্রীয় ভাইস চেয়ারম্যান মো. শাহজাহানসহ অন্য নেতারাও ছিলেন অশ্রুসজল।

গত ৩০ ডিসেম্বর একাদশ সংসদ নির্বাচনে ভোটগ্রহণের পর রাতে নিজের বাড়িতে ধর্ষণের শিকার হন ওই নারী। স্বামী ও স্কুলপড়ুয়া মেয়েকে বেঁধে রেখে তাকে স্থানীয় আওয়ামী লীগের এক নেতা দলবল নিয়ে ধর্ষণ করে বলে এই নারী অভিযোগ করেন।

তিনি অভিযোগ করেন, ভোটকেন্দ্রে নৌকার সমর্থকদের সঙ্গে বাকবিতণ্ডার জের ধরে তার ওপর এই নির্যাতন চালানো হয়।