ব্রেকিং নিউজ

রাত ৯:৩৭ ঢাকা, শনিবার  ২২শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

নৌপরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খান
নৌপরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খান, ফাইল ফটো

‘বিএনপি নির্বাচনে যেতে বাধ্য হবে’

নৌ-পরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান এমপি বলেছেন, মধ্যবর্তী নির্বাচনের প্রশ্নই আসে না। মেয়াদ শেষে আগামী ২০১৯ সালে নির্ধারিত সময়ে সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। আগামী নির্বাচনে অস্তিত্ব রক্ষার জন্য বিএনপি নির্বাচনে যেতে বাধ্য হবে।

কুড়িগ্রামের ভুরুঙ্গমারী উপজেলার সোনাহাটে শুক্রবার সকাল ১১টায় বঙ্গসোনাহাট স্থলবন্দরের অবকাঠামো উন্নয়ন প্রকল্পের উদ্বোধন শেষে তিনি এসব কথা বলেন।

এসময় এলজিআরডি প্রতিমন্ত্রী মশিউর রহমান রাঙ্গা এমপি, জেলা পরিষদের প্রশাসক ও সাবেক সংসদ সদস্য মো. জাফর আলী, কুড়িগ্রাম-১ আসনের সংসদ সদস্য একেএম মোস্তাফিজুর রহমান, জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি দেশবন্ধু গ্রুপের চেয়ারমান সিআইপি গোলাম মোস্তফা, বাংলাদেশ স্থলবন্দর কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান তপন কুমার চক্রবর্তী, বিআইডব্লিউআরটিএ’র চেয়ারম্যান মোজাম্মেল হক প্রমূখ।

শাজাহান খান এমপি আরো বলেন, আগামী নির্বাচনে অস্তিত্ব রক্ষার জন্য বিএনপি নির্বাচনে যেতে বাধ্য হবে। কারণ তারা জানে সংগঠন বাঁচাতে গেলে নির্বাচনে আসতে হবে। গণতন্ত্রের প্রতি ন্যুনতম আস্থা থাকলে তারা অবশ্যই নির্বাচনে আসবে।

মন্ত্রী উন্নয়ন কাজের উদ্বোধন শেষে অধিগ্রহণকৃত জমির মালিকদের মাঝে চেক বিতরণ করেন। তিনি বলেন, খুব শীঘ্রই সোনাহাট স্থলবন্দরে ইমিগ্রেশন কার্যক্রম চালু করা হবে। ২০১৩ সালের ১৭ নভেম্বর এই স্থল বন্দরের কার্যক্রম শুরু হয়।

তিনি শুক্রবার সকাল সাড়ে ১০টায় ঢাকা থেকে হেলিকপ্টার যোগে প্রথমে ভূরুঙ্গামারী কলেজ মাঠে অবতরণ করেন। পড়ে সড়ক পথে বঙ্গসোনাহাট স্থল বন্দরে গিয়ে ৬জনের মাঝে জমি অধিগ্রহণের ৪০ লাখ ৯ হাজার ৪৩৪ টাকার চেক বিতরণ করেন।

মন্ত্রী বন্দরের উন্নয়নমূলক কাজ উদ্বোধন শেষে ভুরুঙ্গামারী উপজেলা পরিষদ চত্বরে উপজেলা আওয়ামীলীগেরএক সমাবেশে যোগ দেন। এরপর তিনি চিলমারী নৌবন্দরের ভিত্তিপ্রস্থর স্থাপন ও সুধিসমাবেশে ভাষন দেন।