Sheersha Media

ব্রেকিং নিউজ

সকাল ৬:৪২ ঢাকা, সোমবার  ১৯শে নভেম্বর ২০১৮ ইং

ফাইল ফটো

বিএনপির সন্ত্রাস ও নৈরাজ্য দমনে সমর্থন থাকবে জাপা’র

সংসদে বিরোধী দলীয় নেতা বেগম রওশন এরশাদ বলেছেন, অবরোধ ও হরতালের নামে বিএনপি সারাদেশে যে সন্ত্রাস ও নৈরাজ্য সৃষ্টি করছে তা দমনে প্রধানমন্ত্রী তথা বর্তমান সরকার যে পদক্ষেপ নেবে তার দল সমর্থন জানাবে।
তিনি আজ সংসদে প্রশ্নোত্তর পর্বের পর অনির্ধারিত বক্তব্যে একথা বলেন। তিনি আন্দোলনের নামে এসব সন্ত্রাস ও নৈরাজ্যের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান।
তিনি বলেন, বিএনপি আন্দোলনের নামে যা করছে তা কোন রাজনৈতিক কর্মসূচি হতে পারে না। আন্দোলনের নামে দেশের নিরীহ মানুষকে পুড়িয়ে মেরে জনগণকে তাদের রাজনীতিক প্রতিপক্ষ হিসেবে দাঁড় করিয়েছে। এটা কোনভাবে মেনে নেয়া যায় না। এর বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নেয়ার জন্য প্রধানমন্ত্রীর প্রতি তিনি আহ্বান জানান।
রওশন এরশাদ বিশ্ব ইজতেমাকে হজের পরে বিশ্বের সর্ববৃহৎ ধর্মীয় সমাবেশ উল্লেখ করে বলেন, এই ইজতেমার সময়েও বিএনপি তাদের হরতাল অবরোধ কর্মসূচি বহাল রেখেছে। যার ফলে ধর্মপ্রাণ মুসলমানরা ঠিকমতো এবং সুস্থিরভাবে বিশ্ব ইজতেমায় অংশগ্রহণ করতে পারেনি। এমনকি হযরত মুহাম্মদ (সাঃ) এর জন্ম এবং ওফাতের মাস পবিত্র মাহে রবিউল আউয়াল মাসেও তারা তাদের আন্দোলনের এসব ধ্বংসাত্মক কর্মকা- চালিয়ে যাচ্ছে। যার ফলে ধর্মপ্রাণ দেশবাসী রবিউল আউয়াল মাসের বিভিন্ন ধর্মীয় অনুষ্ঠান করতে পারেনি।
বেগম রওশন এরশাদ বলেন, বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০দলীয় জোটের তথাকথিত অবরোধ ও হরতালের নামে সন্ত্রাস নৈরাজ্যে এর মধ্যে দেশের ২৫ থেকে ৩০ হাজার কোটি টাকা আর্থিক ক্ষতি হয়েছে। পাশাপাশি এ সময়ে ৩০ জনের মৃত্যু এবং শত শত লোক আহত হয়েছে। তিনি প্রশ্ন রাখেন এসব লাশের দায়-দায়িত্ব কে নেবে?
তিনি বলেন, এ সময়ে অবরোধকারীরা প্রায় ৫শ’ গাড়ি পুড়িয়েছে এবং ১৫শ’ গাড়ি ভাঙচুর করেছে। পাশাপাশি দেশের গার্মেন্টস খাত ব্যাপক ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছে। দেশের প্রধান রফতানি খাত এ পোশাক শিল্পের মালিকরা রফতানির জন্য শিপমেন্ট দিতে পারছে না। এর ফলে দেশের হাজার হাজার কোটি টাকা ক্ষতি হচ্ছে। আর শ্রমজীবী মেহনতি মানুষ কাজ করতে না পেরে চরম অসহনীয় অবস্থায় বসবাস করছে।
তিনি বলেন, যে কোনভাবে হোক দেশ ও জনগণকে রক্ষা করতে আন্দোলনের নামে এসব নৈরাজ্য বন্ধ করতে হবে। কঠিন হস্তে এসব দমন করতে হবে। সবাই মিলিয়ে পাড়ায়-মহল্লায় প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে। এ লক্ষ্যে তিনি সবাইকে কাজ করার আহ্বান জানান।
তিনি বলেন, সংসদে বিরোধী দল হিসেবে জাতীয় পার্টি গঠনমূলক ভূমিকা রাখবে। পাশাপাশি সরকারের জনকল্যাণমূলক কাজের সমর্থন এবং জনস্বার্থ বিরোধী কাজের বিরোধিতা করবে।