ব্রেকিং নিউজ

রাত ২:১০ ঢাকা, বৃহস্পতিবার  ১৬ই আগস্ট ২০১৮ ইং

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের

বিএনপির আন্দোলনের কৌশল সহিংস হলে ব্যবস্থা

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপির আন্দোলনের কৌশল রাজনৈতিক হলে তা রাজনৈতিকভাবে মোকাবেলা করা হবে এবং তা সহিংসতাপূর্ণ হলে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করবে।

তিনি বলেন, ‘ বিএনপির আন্দোলনের কৌশল রাজনৈতিক হলে তা রাজনৈতিকভাবে মোকাবেলা করা হবে। আর তাদের কৌশল সহিংসতাপূর্ণ হলে জনগণের জান-মাল রক্ষায় আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর যা করার দরকার তা করবে।’

ওবায়দুল কাদের আজ সকালে রাজধানীর নিউমার্কেটের পদচারী সেতুর পাশে আওয়ামী লীগের সোহরাওয়ার্র্দী উদ্যানের ৭ মার্চের জনসভা সফল করার লক্ষ্যে লিফলেট বিতরণ অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে এ কথা বলেন।

আগামী ৭ মার্চ ঐতিহাসিক শহীদ সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আওয়ামী লীগের উদ্যোগে এ জনসভা অনুষ্ঠিত হবে। জনসভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখবেন আওয়ামী লীগের সভাপতি এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপির রাজনৈতিক কৌশল তাদের নিজস্ব বিষয়। এ বিষয়ে আমাদের কোন মাথা ব্যথা নেই।

তিনি বলেন, বিষয়টি যদি রাজনৈতিক হয়, তাহলে আমারা তা রাজনৈতিকভাবে মোকাবেলা করব। আর তাদের কৌশল যদি সহিংসতা পূর্ণ হয়, তাহলে উদ্ভূত পরিস্থিতিকে কি করতে হবে তা আমাদের জানা রয়েছে।

অপর এক প্রশ্নের জবাবে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কাদের বলেন, দেশের সংবিধান অনুযায়ী অবাধ, নিরপেক্ষ, শান্তিপূর্ণ ও সকলের কাছে গ্রহণযোগ্য একটি নির্বাচন অনুষ্ঠানের লক্ষ্যে আমরা এগিয়ে যাচ্ছি।

তিনি বলেন, দেশের নিয়ম অনুযায়ী দেশের গণতন্ত্র চলবে এবং নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। আমরা কারো উপদেশের দিকে তাকিয়ে নেই। আমরা একটি ভালো নির্বাচন করতে চাই।

কাদের বলেন, একটি অবাধ নিরপেক্ষ নির্বাচন অনুষ্ঠানের জন্য কারো উপদেশ দেয়ার প্রয়োজন নেই। কারণ তারা ধুয়া তুলশী পাতা নয়। তাদের দেশের গণতন্ত্রের অবস্থা সম্পর্কেও আমরা জানি।

তিনি বলেন, আমরা একটি রাজনৈতিক দল হিসেবে নিজেদের বিবেকের ও দেশের জনগণের চাপে একটি সকলের কাছে গ্রহণযোগ্য ও অংশ গ্রহণমূলক নির্বাচন করতে চাই।

সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, আগামী ৭ মার্চের জনসভাকে স্মরণাতীতকালের সবচেয়ে বড় জনসভায় পরিণত করার লক্ষ্যে আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে ঐতিহ্যগতভাবে প্রচার কার্যক্রম চালানো হচ্ছে।

তিনি বলেন, গত ১ মার্চ থেকে জনসভাকে সফল করার লক্ষ্যে মাইকিং চলছে, পাড়া-মহল্লায়, মার্কেট ও বাসায় বাসায় আওয়ামী লীগের জনসভার হ্যান্ডবিল প্রচার করা হচ্ছে।

কাদের বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আগামী নির্বাচনকে সামনে রেখে বিএনপি-জামায়াতের ষড়যন্ত্র বিষয়ে করণীয় ও দেশে স্থিতিশীল পরিবেশ বজায় রাখতে জনগণকে প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দেবেন।

এ সময় আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ, দপ্তর সম্পাদক ড. আবদুস সোবহান গোলাপ, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ ও যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হক সবুজ প্রমূখ উপস্থিত ছিলেন।