ব্রেকিং নিউজ

বিকাল ৫:০১ ঢাকা, মঙ্গলবার  ১৬ই অক্টোবর ২০১৮ ইং

বাংলাদেশের ৫ লক্ষ শিক্ষার্থীকে ইন্টারনেট শেখাবে গুগল

বাংলাদেশের পাঁচ লাখ শিক্ষার্থীকে ইন্টারনেট ব্যবহার শেখাবে বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় সার্চ ইঞ্জিন গুগল। এজন্য ‘গুগল বাস’ প্রকল্প চালু করেছে গুগল। বুধবার রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগের প্রতিমন্ত্রী জুনায়েদ আহমেদ পলক সুইচ টিপে ‘গুগল বাস বাংলাদেশ প্রজেক্ট’ শীর্ষক এই প্রকল্পের উদ্বোধন করেন।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে পলক বলেন, ইন্টারনেট মানে শুধু ভিডিও গেম, চ্যাটিং, মিউজিক ভিডিও ডাউনলোড করা ও সময় নষ্ট করা নয়। এর মাধ্যমে যে দুনিয়াটাকে পাল্টে দেওয়া যায় সেটা তুলে ধরবে এই গুগল বাস। ২০২১ সালের মধ্যে আরও ২১ হাজার শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে মাল্টি মিডিয়া ক্লাস রুম তৈরি করা হবে বলেও এ সময় জানান তিনি।
গুগল বাসটিতে আসনগুলো এমনভাবে তৈরি করা হয়েছে যে এর প্রতিটি আসনের সামনেই থ্রিজি ইন্টারনেট সংযোগসংবলিত মনিটর ও সাউন্ড সিস্টেম বসানো হয়েছে। অডিও ও ভিডিওর মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের বাসে প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণ দেয়া হবে।
অনুষ্ঠানে জানানো হয়, ইন্টারনেট ব্যবহারের দক্ষতা অর্জন করে শিক্ষার্থীরা যেন নিজ নিজ প্রচেষ্টায় ব্যবসা ও কোনো প্রকল্প তৈরি ও পরিচালনার কলাকৌশল জানতে পারেন সেজন্য গুগল এই উদ্যোগ নিয়েছে। দেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজের পাঁচ লাখ শিক্ষার্থীকে ইন্টারনেটের ব্যবহার শেখানো হবে। গুগল বাস এক বছর ধরে বাংলাদেশের ৩৫টি লোকেশনে গিয়ে পাঁচশ’টি কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসে স্নাতক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের জন্য ইন্টারনেট বিষয়ক প্রশিক্ষণ কর্মশালার আয়োজন করবে।
গুগলের এশিয়া ও প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলের এমার্জিং মার্কেটসের কান্ট্রি ম্যানেজার জেমস ম্যাকক্লুর এ প্রসঙ্গে বলেন, আমরা মনে করি উপযুক্ত প্রশিক্ষণ পেলে সমাজের উৎসাহী, উদ্যমী ও প্রাণচঞ্চল তরুণ শক্তিই একদিন ইন্টারনেটের অমিত সম্ভাবনাকে কাজে লাগিয়ে ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ে তুলবে। তিনি বলেন, বাংলাদেশ হলো এমন এক দেশ যেখানে সম্ভাবনাময় বিশাল তারুণ্যের শক্তি রয়েছে, যারা দেশকে উন্নয়ন ও সমৃদ্ধির দিকে নিয়ে যেতে পারেন।