ব্রেকিং নিউজ

সকাল ১০:৪৬ ঢাকা, বৃহস্পতিবার  ১৯শে জুলাই ২০১৮ ইং

খালেদা জিয়া

বন্যার্তদের পাশে থাকতে নেতাদেরকে নির্দেশ ‘বিএনপি নেত্রীর

বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া দলের নেতাকর্মী বিশেষ করে কেন্দ্রীয় নেতাদের দেশের উত্তর ও পূর্বাঞ্চলে বন্যা উপদ্রুত এলাকায় গিয়ে বন্যার্তদের পাশে অবস্থানের নির্দেশ দিয়েছেন। বন্যাদুর্গত মানুষের পাশে থেকে তাদের যথাসম্ভব সহায়তা সাহায্য করতে বলেছেন তিনি। কেবল কেন্দ্রীয় নেতা নন, যারা আগামী নির্বাচনে প্রার্থী হতে ইচ্ছুক তাদেরকেও বন্যা কবলিত এলাকায় গিয়ে থাকতে বলেছেন।

লন্ডনে অবস্থানরত বেগম জিয়া মঙ্গলবার দুপুরে দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ ঢাকায় কয়েকজন নেতাদের সাথে কথা বলেন। সর্বশেষ রাজনৈতিক অবস্থা ও বন্যা পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা করেন। এ সময় তিনি এই নির্দেশ দেন।

বিএনপি চেয়ারপারসনের বিশেষ সহকারী এডভোকেট শামসুর রহমান শিমুল বিশ্বাসের কাছে জানতে চাইলে তিনি গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন, ম্যাডাম সারাদেশে বিএনপির সকল পর্যায়ের নেতাকর্মী ও স্বচ্ছল মানুষকে অতিদ্রুত বন্যাদুর্গত মানুষের পাশে দাঁড়ানোর জন্য উদাত্ত আহ্বান জানিয়েছেন। বিশেষ করে দলের নেতাদেরকে বন্যাকবলিত অসহায় মানুষের পাশে গিয়ে অবস্থান ও তাদেরকে যথাসম্ভব সাহায্য সহায়তা করার নির্দেশ দিয়েছেন। আমরা ইতিমধ্যেই দলের নেতাদের কাছে তাঁর নির্দেশনা পৌঁছে দিচ্ছি।

তিনি বলেন, ম্যাডাম প্রতিদিনই বন্যা পরিস্থিতির খোঁজ খবর নিচ্ছেন। তিনি দেশের উত্তর ও পূর্বাঞ্চলে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি হওয়ায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন। বানভাসী মানুষের মাঝে ত্রাণবিতরনের জন্য যে যেটুকু পারেন তা নিয়ে এগিয়ে আসার আহবান জানিয়েছেন।

এদিকে ইতিমধ্যে মির্জা ফখরুল ইসলাম উত্তরবঙ্গের বিভিন্ন জেলায় বানভাসি মানুষের মধ্যে ত্রাণ বিতরণ শুরু করেছেন। মঙ্গলবার দুপুর ১২টায় দিনাজপুর শহরের উপকণ্ঠ বাঙ্গিবেচা ঘাটে স্থানীয় নেতাদের নিয়ে বানভাসি মানুষের মধ্যে ত্রাণ বিতরণ করেছেন।

মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর অভিযোগ করেন, বন্যাকবলিত এলাকায় পর্যাপ্ত সরকারি ত্রাণ যাচ্ছে না। তিনি বলেন, সারা দেশে লাখ লাখ মানুষ বন্যায় আক্রান্ত হলেও সরকারিভাবে তেমন ত্রাণ তত্পরতা নেই। দুর্গত এলাকায় ব্যাপক ত্রাণ তত্পরতা শুরু করার জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানান।