Sheersha Media

ব্রেকিং নিউজ

দুপুর ১২:২২ ঢাকা, বুধবার  ২১শে নভেম্বর ২০১৮ ইং

বঙ্গবন্ধু ভবনে মানুষের ঢল

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে তাঁর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করতে আজ শনিবার সকালে ধানমন্ডির ৩২ নম্বর সড়কে মানুষের ঢল নামে।
বাংলাদেশ স্বাধীনের পর পাকিস্তানের কারাগার থেকে মুক্ত হয়ে তিনি প্রথমে লন্ডন ও পরে দিল্লী হয়ে ১৯৭২ সালের এ দিনে স্বাধীন বাংলার মাটিতে ফিরে আসেন।
দিবসটি উপলক্ষে ধানমন্ডি ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধু ভবন প্রাঙ্গণে আনন্দঘন পরিবেশের সৃষ্টি হয় এবং সর্বস্তরের মানুষ বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা জানাতে আসেন। স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে পৌষের শিশির ভেজা সকলে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠন এবং বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতা-কর্মী-সমর্থকসহ সর্বস্তরে হাজার হাজার মানুষ বঙ্গবন্ধু ভবনে ভিড় জমায়।
ভোর সাড়ে ৬টার দিক থেকে রাজধানীর বিভিন্ন স্থান থেকে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মী ও সমর্থকরা মিছিল করে ৩২ নম্বর সড়কের পূর্ব ও পশ্চিম পাশের মোড়ে জমায়েত হতে থাকে। সকাল ৭টার মধ্যেই সর্বস্তরের মানুষের ভিড়ে কানায়-কানায় পূর্ণ হয়ে যায় ৩২ নম্বর সড়ক ও আশেপাশের এলাকা।
শিশু-কিশোরসহ হাজার হাজার নারী-পুরুষ বঙ্গবন্ধু ভবনের সামনে জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণের মধ্যদিয়ে বাঙালি জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করে। সকাল ১০টার মধ্যেই বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি ফুলে-ফুলে ভরে যায়।
সকাল ৭টায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রথমে সরকার প্রধান হিসেবে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ করেন। এ সময় তিনি সেখানে কিছুক্ষণ নিরবে দাঁড়িয়ে থাকেন।
পরে তিনি আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দকে সঙ্গে নিয়ে বাংলাদেশের স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে আওয়ামী লীগের পক্ষে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন।
এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য আমির হোসেন আমু, তোফায়েল আহমেদ ও সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত, আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য বেগম মতিয়া চৌধুরী ও শেখ ফজলুল করিম সেলিম, আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ ও ডা. দীপু মনি, সাংগঠনিক সম্পাদক খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক এডভোকেট আফজাল হাসেন, নৌপরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খান, খাদ্যমন্ত্রী এডভোকেট কামরুল ইসলাম, বস্ত্র ও পাট প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য এস এম কামাল হোসেনসহ দলের অঙ্গ-সংগঠনের নেতারা উপস্থিত ছিলেন।
প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধু ভবন ত্যাগ করার পর ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগসহ দলের সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মী-সমর্থক এবং সর্বস্তরের মানুষ সারিবদ্ধভাবে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পার্ঘ্য নিবেদন করেন।
ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের পক্ষে ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এম এ আজিজ এবং সাধারণ সম্পাদক মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীরবিক্রম পুষ্পস্তবক অর্পণের মাধ্যমে জাতির জনকের প্রতি শ্রদ্ধা জানান।
এ ছাড়াও কেন্দ্রীয় যুবলীগ, কৃষক লীগ, স্বোচ্ছাসেবক লীগ, মহিলা আওয়ামী লীগ,যুব মহিলা লীগ, জাতীয় শ্রমিক লীগ, বাংলাদেশ ছাত্রলীগ নেতা ও কর্মীরা বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ করেন।
আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠন ছাড়াও বঙ্গবন্ধু পরিষদ, বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট, মুক্তিযোদ্ধা কেন্দ্রীয় কমান্ড কাউন্সিল, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট, বাংলাদেশ তাঁতী লীগ, জাতীয় ঘাট শ্রমিক লীগ, বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগ, শেখ রাসেল শিশু সংঘ, আওয়ামী সাংস্কৃতিক ফোরাম, শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ সমিতি, বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন শ্রমিক কর্মচারী লীগ, মুক্তিযোদ্ধা সংহতি পরিষদ, আওয়ামী শিল্পী গোষ্ঠী, বঙ্গবন্ধু হারবাল চিকিৎসক পরিষদ, ঢাকা আইনজীবী সমিতি, বাংলাদেশ আওয়ামী যুব আইনজীবী পরিষদ, কেন্দ্রীয় যুব শ্রমিক লীগ, বাংলাদেশ আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্ম, বাংলাদেশ আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা লীগ, আওয়ামী ওলামা লীগ, বঙ্গবন্ধু ডিপে¬¬ামা প্রকৌশলী পরিষদ, বঙ্গবন্ধু লেখক পরিষদ, বঙ্গবন্ধু জাতীয় চারনেতা পরিষদ, বঙ্গমাতা পরিষদ, ঢাকা মহানগর মহিলা আওয়ামী লীগ, বঙ্গবন্ধু সাহিত্য পরিষদ, বাংলাদেশ রিকশা শ্রমিক লীগ, বাংলাদেশ আওয়ামী তরুণ লীগ, বাংলাদেশ হকার্স লীগ, বাংলাদেশ-ভারত সম্প্রীতি পরিষদ, বঙ্গবন্ধু জাতীয় যুব পরিষদ, স্বাধীনতা হোমিওপ্যাথিক চিকিৎসক পরিষদ, শেখ রাসেল স্মৃতি পরিষদসহ প্রভৃতি সংগঠন বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণের মাধ্যমে শ্রদ্ধা জানায়।