ব্রেকিং নিউজ

সন্ধ্যা ৬:৪৫ ঢাকা, শুক্রবার  ২১শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

মিডিয়াকে হোয়াইট হাউজে ঢুকতে দেয়নি

প্রভাবশালী কিছু মিডিয়াকে হোয়াইট হাউজে ঢুকতে দেয়নি

বিবিসি, সিএনএন, নিউইয়র্ক টাইমসসহ বেশ কয়েকটি প্রভাবশালী কিছু সংবাদমাধ্যমকে একটি অনানুষ্ঠানিক প্রেস ব্রিফিংয়ে ঢুকতে দেয়া হয়নি। হোয়াইট হাউজের প্রেস সেক্রেটারি শন স্পাইসারের এই প্রেস ব্রিফিংয়ে কেন তাদের বাধা দেয়া হয়েছে তা পরিষ্কারভাবে জানানো হয়নি।

এর মাত্র কয়েক ঘণ্টা আগে এক বক্তব্যে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছিলেন, ভুয়া সংবাদ জনগণের শত্রু। টুইটারে তিনি বেশ কয়েকবার সিএনএন, নিউইয়র্ক টাইমসকে ভুয়া সংবাদ মাধ্যম বলে অভিহিত করেছেন। ধারণা করা হচ্ছে, রাশিয়ার সঙ্গে ট্রাম্পের নির্বাচনী প্রচারণা দলের সঙ্গে যোগাযোগের বিষয়ে রিপোর্ট করায় ক্ষুব্ধ হয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট।

শুক্রবার ট্রাম্পের ভাষণের কিছুক্ষণ পরেই শন স্পাইসারের ব্রিফিংয়ে মাত্র কিছু নির্দিষ্ট কিছু সংবাদমাধ্যমকে ডাকা হয়। সেখানে থাকা সংবাদ মাধ্যমগুলোর মধ্যে ডানপন্থী বলে পরিচিত ফক্স নিউজ, অল্ট রাইট মুভমেন্টের মুখপাত্র ব্রেইটবার্ট নিউজ, এবিসি, রয়টার্স ও ওয়াশিংটন টাইমসকে সুযোগ দেয়া হয়। বাদ দেয়া হয় সিএনএন, বিবিসি, নিউইয়র্ক টাইমস, লস অ্যাঞ্জেলেস টাইমস, বাজফিড ও গার্ডিয়ানকে।

এই সংবাদমাধ্যমগুলোর রিপোর্টাররা শন স্পাইসারের ব্রিফিংয়ে প্রবেশ করতে চাইলে তাদের বাধা দেয়া হয়, বলা হয় তাদের নাম তালিকায় নেই। এই ঘটনার তীব্র সমালোচনা করে সিএনএন এর বিবৃতিতে বলা হয়, এই ঘটনা ট্রাম্পের হোয়াইট হাউজের একটি অগ্রহণযোগ্য পদক্ষেপ। যখন আপনি এমন তথ্য প্রকাশ করবেন যা তারা পছন্দ করে না সেটার জবাব তারা এমনভাবেই দেবে। কিন্তু আমরা রিপোর্টিং অব্যাহত রাখবো।

নিউইয়র্ক টাইমসের নির্বাহী সম্পাদক ডিন বাকেট বলেন, দুই দলের প্রশাসনের আমাদের কাভারেজের দীর্ঘ ইতিহাসে এমন নজির কখনো নেই। আমরা নিউইয়র্ক টাইমসসহ অন্য সংবাদ মাধ্যমগুলোকে বাদ দেয়ার তীব্র প্রতিবাদ করছি। সিএনএন ও বিবিসি।