Sheersha Media

ব্রেকিং নিউজ

সকাল ১০:২৩ ঢাকা, মঙ্গলবার  ১৩ই নভেম্বর ২০১৮ ইং

মির্জা আজম
পাট ও বস্ত্র প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম

পাটপণ্যের ওপর ‘এ্যান্টি-ডাম্পিং শুল্ক’ তুলে নেয়ার উদ্যোগ

পাট ও বস্ত্র প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম বলেছেন, বাংলাদেশের পাটপণ্যের ওপর ভারতের করা এ্যান্টি-ডাম্পিং শুল্ক তুলে নেয়ার জন্য সরকার সব ধরনের উদ্যোগ গ্রহণ করেছে।

তিনি বলেন, এই আইনের ফলে বাংলাদেশ থেকে ভারতে প্রতি বছর যে এক লাখ টন পাটপণ্য রফতানি হয় তার ওপর নেতিবাচক প্রভাব পড়বে।

প্রতিমন্ত্রী আজ রাজধানীতে ‘জুট ডাইভার্সিফিকেশন প্রমোশন সেন্টার (জেডিপিসি)’র উদ্বোধন উপলক্ষে এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘এই আইনের কারণে ভারতে পাটপণ্য রফতানির ক্ষেত্রে বাংলাদেশ অনেক ক্ষতির সম্মুখীন হবে। তাই আমরা ভারতের সরকারের সঙ্গে এ্যান্টি-ডাম্পিং আইনের প্রক্রিয়াসহ অন্যান্য বিষয়ে আলোচনার জন্য বিভিন্ন উদ্যোগ নিয়েছি।’

মির্জা আজম বলেন, এ ছাড়াও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আগামী মাসে ভারত সফরের সময় ভারতীয় সরকারের কাছে এ্যান্টি-ডাম্পিং আইন তুলে নেয়ার জন্য আলোচনা করবেন।

তিনি বলেন, রফতানির ক্ষেত্রে এ ধরনের ক্ষতি মোকাবেলায় সরকার ইতোমধ্যে ছয়টি প্রয়োজনীয় পণ্যের বাজারজাতে বাধ্যতামূলক পাটের বস্তা ব্যবহারের আইন বাস্তবায়ন করছে। যার মাধ্যমে দেশের অভ্যন্তরে প্রচুর কাঁচা পাট ব্যবহার নিশ্চিত হচ্ছে। এ ছাড়াও আরো ১১টি পণ্যের মোড়কে পাটের বস্তা ব্যবহার বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। এতে ভারতে প্রতি বছর ১ লাখ টন পাটপণ্য রফতানি করা সম্ভব না হওয়ার লোকসান কিছুটা কাটিয়ে ওঠা সম্ভব হবে।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘এ ছাড়া ভারতে পাটপণ্য রফতানির ক্ষেত্রে ক্ষতি মোকাবেলায় আফ্রিকার বিভিন্ন দেশ ও অস্ট্রেলিয়ায় পাট রফতানির জন্য আমরা নতুন বাজার খুঁজছি।’

সংবাদ সম্মেলনে অন্যান্যের মধ্যে ডেডিপিসি’র নির্বাহ পরিচালক নাসিমা বেগম, অপ্রচলিত পণ্যের রফতানি বিষয়ক স্ট্যান্ডিং কমিটির চেয়ারম্যান মো. রাশেদুল করিম মুন্নাসহ মন্ত্রণালয়ের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

FOLLOW US: