Sheersha Media

ব্রেকিং নিউজ

সকাল ৯:২৪ ঢাকা, বুধবার  ২১শে নভেম্বর ২০১৮ ইং

পাটকল শ্রমিকদের আন্দোলন চলছেই

৫ দফা দাবি বাস্তবায়নে বুধবার ভোরে খুলনা ও যশোরের পাটকলগুলোতে পৃথকভাবে গেট সভা করেছে শ্রমিকরা।

গেট সভা শেষে শ্রমিকরা মিছিল করে ৩টি পয়েন্টে খুলনার নতুন রাস্তা ও আটরা, যশোরের রাজঘাট এলাকা এবং খুলনা যশোর মহাসড়কের রেললাইনের সংযোগ স্থলে অবস্থান নিয়ে অবরোধ পালন করছে।

তারা আন্দোলনরত শ্রমিকদের বাদ দিয়ে মঙ্গলবার মন্ত্রণালয়ে আন্দোলন বহির্ভূতদের নিয়ে বৈঠকের প্রতিবাদ জানাচ্ছিলেন।

আজ বিকালে মন্ত্রণালয়ে খুলনা ও যশোরের পাটকল সিবিএ নেতাদের সঙ্গে পাটপ্রতিমন্ত্রীর বৈঠকের কথা রয়েছে। এই বৈঠক শেষে ঐক্য পরিষদের নেতারা আন্দোলন পরিস্থিতি নিয়ে পরবর্তী পদক্ষেপ ঘোষণা করবেন।

রাষ্ট্রায়ত্ব পাটকল শ্রমিকদের পাঁচ দফা দাবির মধ্যে রয়েছে- পাট শিল্পকে বাঁচিয়ে রাখার স্বার্থে মিলগুলোকে পূর্ণাঙ্গ উৎপাদনমুখী করতে পাটখাতে প্রয়োজনীয় অর্থ ছাড়, পে-কমিশনের ন্যায় অবিলম্বে শিল্প শ্রমিকদের জন্য মজুরি কমিশন বোর্ড গঠন, ২০১৩ সালের ১ জুলাই ঘোষিত ২০ শতাংশ মহার্ঘ্য ভাতা প্রদান এবং খালিশপুর, দৌলতপুর, কর্ণফুলী জুট মিলের শ্রমিকদের চাকরি স্থায়ীকরণসহ সব পাওনা পরিশোধ।

রাষ্ট্রায়ত্ত্ব জুট মিল সিবিএ-ননসিবিএ ঐক্য পরিষদের আহ্বায়ক সোহরাব হোসেন বলেন, বেতন-ভাতা না পেয়ে শ্রমিকদের পিঠ দেয়ালে ঠেকে গেছে। প্রশাসনও আশ্বস পূরণ করতে পারেনি। ফলে এখন আর শ্রমিকরা আশ্বাসে ভুলবে না। ফান্ডে টাকা আসলেই শ্রমিকরা ঘরে ফিরে যাবে। ৫ দফা দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত এ আন্দোলন চলবে।

প্রসঙ্গত, শ্রমিকদের গত সোমবার শ্রমিকদের বকেয়াসহ পাটশিল্পের উন্নয়নে সরকার এক হাজার কোটি টাকা বরাদ্দের ঘোষণা দেন।