Press "Enter" to skip to content

পদ্মা সেতুতে দুর্নীতি হয়নি, আসামিরা খালাস: কানাডীয় আদালত

পদ্মা সেতু প্রকল্পে দুর্নীতির ষড়যন্ত্রের মামলা থেকে অব্যাহতি পেয়েছেন এসএনসি-লাভালিনের সাবেক তিন কর্মকর্তা।

শুক্রবার কানাডায় অন্টারিওর একটি আদালত তাদের খালাস দিয়ে মামলাটি নিষ্পত্তি করেছেন।

অব্যাহতি পাওয়া এসএনসি-লাভালিনের সাবেক তিন কর্মকর্তা হলেন, ভাইস প্রেসিডেন্ট কেভিন ওয়ালেস, প্রতিষ্ঠানটির আন্তর্জাতিক প্রকল্প বিভাগের সাবেক ভাইস প্রেসিডেন্ট রমেশ শাহ ও বাংলাদেশী বংশোদ্ভূত কানাডীয় ব্যবসায়ী জুলফিকার আলী ভূঁইয়া। খবর সিবিসির।

পদ্মা সেতু প্রকল্পে দুর্নীতির ষড়যন্ত্রের অভিযোগ তুলে বিশ্বব্যাংক ঋণ বাতিল করেছিল।

এ ঘটনায় দায়ের মামলায় ২০১৩ সালে এসএনসি-লাভালিনের সাবেক ভাইস প্রেসিডেন্ট কেভিন ওয়ালেসকে তাৎক্ষণিকভাবে গ্রেপ্তার করে। পরে তাকেসহ তিনজনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দেয়া হয়।

গত মাসে অন্টারিওর আদালতের বিচারক ইয়ান নরডেইমার এ মামলায় ষড়যন্ত্রের লিখিত তথ্যপ্রমাণ উপস্থাপনে রুল জারি করেন।

আদালতের নির্দেশে ফোনে আড়ি পেতে ধারণ করা যেসব তথ্য আদালতে উপস্থাপন করা, তা নিছক গুজব আর গুঞ্জন বলে প্রত্যাখ্যান করেন বিচারক।

আসামিপক্ষের আইনজীবীর এক মুখপাত্র বলেছেন, আদালত পদ্মা সেতু প্রকল্পে দুর্নীতির ষড়যন্ত্রের কোনো প্রমাণ পাননি। এজন্য আসামিদের খালাস দিয়েছেন।

সম্পর্কিত সংবাদ

‘সরকারের সুনামহানি করতে ষড়যন্ত্র করেছে বিশ্বব্যাংক’- জয়

Mission News Theme by Compete Themes.