ব্রেকিং নিউজ

রাত ১১:৩৩ ঢাকা, মঙ্গলবার  ১৮ই সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

তোফায়েল আহমেদ
বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ, ফাইল ফটো

নির্বাচনে না এলে অস্তিত্ব সংকটে পড়বে বিএনপি : বাণিজ্যমন্ত্রী

বাণিজ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য তোফায়েল আহমেদ বলেছেন, বিএনপি আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ না নিলে বড় ধরনের অস্তিত্ব সংকটে পড়বে।

তিনি বলেন, ‘বিশ্বের বিভিন্ন দেশের মতোই বাংলাদেশেও সংবিধান অনুযায়ী আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। বিএনপি সেই নির্বাচনে অংশ গ্রহণ না করলে অস্তিত্ব সংকটে পড়বে।’

তোফায়েল আহমেদ আজ রোববার সচিবালয়ে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সভা কক্ষে ঈদ পরবর্তি শুভেচ্ছা বিনিময় শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে এ সব কথা বলেন।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, সংবিধান অনুযায়ী বর্তমান সরকারই অন্তর্বর্তীকালীন সরকারের দায়িত্ব পালন করবে। নির্বাচন পরিচালনা করবে নির্বাচন কমিশন। তবে আগামী সেপ্টেম্বর মাসে সংসদের যে অধিবেশন ডাকা হয়েছে, এটি সম্ভবত এই সংসদের শেষ অধিবেশন।

তিনি বলেন, নির্বাচনের বাকি আছে আর মাত্র চার মাস। যারা নির্বাচন করবে তারা তো মাঠে থাকবে। আমরা আওয়ামী লীগ মাঠে আছি। আর কেউ যদি মাঠে না থাকে তাহলে তো আর আমাদের কিছু করার নেই।

আওয়ামী লীগের প্রবীন এই নেতা বলেন, দেশের উন্নয়নের জন্য জনগণ শেখ হাসিনাকে আবার ক্ষমতায় দেখতে চায়। কারণ শেখ হাসিনা বাংলাদেশকে এক অন্য ধরনের উচ্চতায় নিয়ে গেছেন।

কাঁচা চামড়া রফতানির কোন পরিকল্পনা সরকারের আছে কি না জানতে চাইলে বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, ‘কাঁচা চামড়া রফতানির কোনও পরিকল্পনা সরকারের নেই। কারণ, কাঁচা চামড়া রফতানি করা হলে দেশের চামড়া শিল্প ধ্বংস হয়ে যাবে। সরকার এ খাতের উন্নয়নে সবকিছু করবে।

তিনি বলেন, চামড়া নিয়ে যে সংকট হয়েছে তার মূল কারণ হচ্ছে সাভারে চামড়া কারখানাগুলো ঠিকভাবে চালু হয়নি। সেখানকার কেন্দ্রীয় বর্জ্য শোধনাগারও চালু হয়নি। প্লটের মালিকরা জমির মালিকানার দলিলও পায়নি। ব্যাংক থেকে ঋণ পায়নি। মূলত এসব কারণেই কিছু জটিলতা সৃষ্টি হয়েছে।

তোফায়েল আহমেদ বলেন, চামড়া বাংলাদেশের পাঁচটি রফতানি খাতের মধ্যে একটি অন্যতম খাত। এরকম একটি সম্ভাবনাময় খাত যাতে কোনোভাবেই ধ্বংস হয়ে না যায় সেজন্য সরকার সতর্ক আছে।