ব্রেকিং নিউজ

সকাল ১১:১৩ ঢাকা, মঙ্গলবার  ২৫শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

ছাত্রী নির্যাতন
আজ সকালে সকল বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা এ প্রতিবাদ জানায়

নলছিটিতে ছাত্রী নির্যাতনের প্রতিবাদ

ঝালকাঠি প্রতিনিধি ॥ ঝালকাঠির নলছিটি বালিকা মাধ্যমিক বিদ্যালয় অ্যান্ড কলেজের দশম শেণির ছাত্রী সোনিয়া আক্তারের নির্যাতনকারী বখাটেদের গ্রেপ্তার ও বিচারের দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল ও মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়েছে।

আজ শনিবার সকাল ১১টায় বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা শহরে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করে। মিছিল শেষে তারা স্থানীয় প্রেস ক্লাবের সামনের সড়কে জড়ো হয়ে শহরের প্রধান সড়ক অবরোধ করে রাখে। সেখানে ঘন্টাব্যাপী মানববন্ধন করে তারা।

এ কর্মসূচিতে একাত্মতা প্রকাশ করে অংশ নেন নলছিটি মার্চেন্টস মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয় অ্যান্ড কলেজ, বন্দর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও আদর্শ সরকারি প্রথমিক বিদ্যালয়ের ছাত্রী, অভিভাবক ও শিক্ষকরা। মানববন্ধনে বখাটেদের হাতে নির্যাতনের শিকার সোনিয়ার বাবা আলতাফ হোসেনের সঙ্গে স্বজনরাও অংশ নেন। কর্মসূচিতে অংশগ্রহনকারীরা বখাটে সোহেল খান ও শুভসহ আসামিদের গ্রেপ্তারের দাবি জানিয়ে স্লোগান দেন।

মানববন্ধন চলাকালে বক্তব্য দেন নলছিটি বালিকা মাধ্যমিক বিদ্যালয় অ্যান্ড কলেজের প্রধান শিক্ষক জলিলুর রহমান আকন্দ, সোনিয়ার চাচা মজিবুর রহমান, সোনিয়ার সহপাঠী রামিশা ফারিহা চৌধুরী তনু, ফাহিমা আক্তার তন্নি, বিজয়ীতা দাস স্নিগ্ধা ও সানজিদা আক্তার। বক্তারা দ্রুততম সময়ের মধ্যে নির্যাতনকারী বখাটেদের গ্রেপ্তার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান।

বান্ধবীকে বখাটের হাত থেকে রক্ষা করতে গিয়ে নির্যাতনের শিকার হয় স্কুল ছাত্রী সোনিয়া আক্তার। গত ১৭ জানুয়ারি শহরের মল্লিকপুর এলাকার বাসায় ঢুকে হত্যাচেষ্টা করে বখাটে সোহেল, শুভ ও আরো তিন-চারজন যুবক। মুমূর্ষ অবস্থায় তাকে বরিশাল শেরেবাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। বর্তমানে সেখানেই চিকিৎসাধীন রয়েছে সোনিয়া। তাঁর অবস্থা সংকটাপন্ন বলেও জানিয়েছেন স্বজনরা। এ ঘটনায় চারজনকে আসামি করে নলছিটি থানার মামলা নং-৭. তারিখ-২০/১/১৭ইং-, ধারা-১৪৩/৪৪৮/৩২৩/৩২৫/৩০৭/৩৫৪/৩৭৯/৩৮০/৪২৭/৫০৬ দ:বি:। যদিও কাউকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি পুলিশ।

সোনিয়ার চাচা মজিবুর রহমান বলেন, হাসপাতালে চিকিৎসাধীন সোনিয়ার কোন উন্নতি হয়নি। এখনো সে গুরুতর অসুস্থ। একটি শিশুকে এভাবে নির্যাতন করে পালিয়ে গেল বখাটে সোহেল ও শুভ গং, তাদের এখনো গ্রেপ্তার করতে পারেনি পুলিশ। আমরা ওই বখাটেদের অনতিবিলম্বে গ্রেপ্তার ও শাস্তির দাবি করছি।

এ বিষয়য়ে জানতে চাওয়া হলে নলছিটি থানার ওসি এ কে এম সুলতান মাহামুদ শীর্ষ মিডিয়াকে বলেন, সোনিয়ার ওপর নির্যাতনকারীদের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। বর্তমানে তারা পলাতক, তাদের গ্রপ্তারে পুলিশ আপ্রাণ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।