ব্রেকিং নিউজ

দুপুর ১:৪২ ঢাকা, বৃহস্পতিবার  ২০শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

ফাইল ফটো

“দেশের নিয়ন্ত্রণ এখন অপরাধীদের হাতে”: রিজভী

বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, ‘দেশের নিয়ন্ত্রণ এখন অপরাধীদের হাতে’, উগ্রক্ষমতালোভ, জনগণের প্রতি অমানবিক অবজ্ঞা আর রক্তাক্ত সন্ত্রাসের পথই হচ্ছে বর্তমান অবৈধ শাসকগোষ্ঠীর রাষ্ট্র পরিচালনার অনুসৃত পথ। যার কারণে গণতন্ত্র এখন পালিয়ে বেড়াচ্ছে এবং আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতি এক বর্বর হিংসাযুদ্ধে লিপ্ত।’ রিজভী বলেন, গণতন্ত্র হত্যার  অপরাধে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে প্রধান আসামি হিসেবে কাঠগড়ায় দাঁড়াতে হবে। বর্তমান সরকারের সহযোগী হিসেবে নির্বাচন কমিশনও (ইসি) হবে কালো তালিকাভূক্ত দ্বিতীয় প্রধান আসামি।

বুধবার নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের আগে ক্ষমতাসীনদের ‘পৈশাচিকতা ও বর্বরোচিত কর্মকাণ্ড’ বৃদ্ধি পেয়েছে দাবি করে রিজভী বলেন, ইউপি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে পিরোজপুর জেলার নাজিরপুর থানার শেখ মাটিয়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে বিএনপি মনোনীত ধানের শীষের প্রার্থী তৌহিদুল ইসলামের পক্ষে নির্বাচনী প্রচারণা চালানোর সময় থানা ছাত্রদলের নেতা মো: শামসুল হক ছোট্টর ওপর হামলা চালায় সরকার সমর্থকরা। এতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। হামলায় গুরুতর আহত হয়েছেন ইউনিয়ন বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক জাহাঙ্গীর হোসেন। তার অবস্থাও আশঙ্কাজনক।

ইউপি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে দেশের বিভিন্ন স্থানে পিরোজপুরের মতো বিএনপির প্রার্থীদের হুমকি, হামলা, প্রচারণায় বাধা, নেতাকর্মীদের ওপর নির্যাতন করা হচ্ছে বলেও অভিযোগ করেন রিজভী।

তিনি আরো বলেন, ‘দেশজুড়ে ইউপি নির্বাচনী এলাকাগুলোতে জনগণের অংশগ্রহণকে পদদলিত করে যারা সব আত্মসাৎ করে নিচ্ছে, তাদের ছিনতাই করা বিজয়কে বৈধতার সনদ দিচ্ছে নির্বাচন কমিশন।’

‘সরকারের মদদে’ গোটা নির্বাচনী ব্যবস্থা সন্ত্রাসী দু:শাসনের ছায়ায় গ্রাস হয়ে আছে মন্তব্য করে বিএনপির এই যুগ্ম মহাসচিব বলেন, ‘নির্বাচন কমিশন এই অনাচারকে আশকারা দিয়ে যাচ্ছে। সরকারের গণতন্ত্র হত্যার উদ্দেশ্য চরিতার্থ করতেই নির্বাচন কমিশন তার হীন কর্মকাণ্ডের মধ্য দিয়ে গণতন্ত্রকে আগেই শয্যাশায়ী ও মরনাপন্ন করেছে।’

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির অর্থ বিষয়ক সম্পাদক আবদুস সালাম, সাংগঠনিক সম্পাদক ফজলুল হক মিলন, শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক খায়রুল কবির খোকন,  সহ সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আবসুদ সালাম আজাদ প্রমুখ।