ব্রেকিং নিউজ

সকাল ৬:৪২ ঢাকা, বুধবার  ২৬শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

টাঙ্গাইলের একটি কেন্দ্রের সংঘর্ষের দৃশ্য

তিনজনের প্রাণ নিয়ে ইউপি নির্বাচনের সমাপ্তি

শেষ ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ময়মনসিংহের গফরগাঁও, নোয়াখালী ও ফেনীর সোনাগাজীতে তিনজন নিহত হয়েছেন। এ সময় বেশ কয়েকজন আহত হয়েছেন।

ময়মনসিংহ : ময়মনসিংহের গফরগাঁও উপজেলায় নির্বাচনী সহিংসতায় একজন নিহত ও তিনজন গুলিবিদ্ধসহ ১০ জন আহত হয়েছেন। শনিবার দুপুরে গফরগাঁও উপজেলার সালটিয়া ইউনিয়নের পুকুরিয়া এলাকায় এ সংঘর্ষ হয়।

ইউপি সদস্য প্রার্থী মোবারকের লোকজন পুলিশের ওপর হামলা করলে পুলিশ ও বিজিবি সদস্যরা আত্মরক্ষার্থে ফাঁকা গুলি ছুড়ে। এ সময় ঘটনাস্থলে শাহাজাহান (৫২) মিয়া মারা যান।

নোয়াখালী :  নোয়াখালীতে  নির্বাচনী সহিংসতায়  আরাফাত (২৬) নামে এক ছাত্রলীগ নেতার মৃত্যু হয়েছে। শনিবার দুপুরে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতাল থেকে ঢাকায় নেয়ার পথে তার মৃত্যু হয়। নিহত আরাফাত নেওয়াজপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক। তার বাবার নাম মো. সেলিম। এছাড়া সংঘর্ষে গুরুতর আহত হয়েছেন নেওয়াজপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সহসভাপতি জাহিদ (২৩)।

জেলা সদরের ১১ নম্বর নেওয়াজপুর ইউনিয়নে মোহাম্মদীয়া এবতেদায়ি মাদ্রাসা কেন্দ্রে শনিবার সকালে দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। আহত জাহিদ হোসেনকে মুমূর্ষু অবস্থায় নোয়াখালী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়। নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতাল থেকে ঢাকায় নেয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।

পরশুরাম (ফেনী) : ফেনীর সোনাগাজী উপজেলায় কেন্দ্র দখলের সময় সংঘর্ষে একজন নিহত হয়েছেন। এ সময় সাতজন আহত হয়েছেন। শনিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে চরচান্দিয়া ইউনিয়নের চরভৈরবে হাজি তোফায়েল আহমেদ উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে এ ঘটনা ঘটে।

‘কেন্দ্র দখলের সময় বৃষ্টির মত গুলি বর্ষণ করা হয়। এ সময় তিনি ও কেন্দ্রের কর্মরত কর্মকর্তারা পার্শ্ববর্তী রুমে গিয়ে আশ্রয় নেন। এ সময় একজন মারা যান।