ব্রেকিং নিউজ

রাত ১০:১৯ ঢাকা, বুধবার  ১৯শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

ফ্লাইটের ভেতরে গোল চিহ্নিত ট্রাম্প কন্যা ইভানকা ট্রাম্প

ট্রাম্প কন্যার সঙ্গে বিমানে কথা কাটাকাটি, যাত্রীকে নামিয়ে দিল

যুক্তরাষ্ট্রের নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বড় মেয়ে ইভানকা ট্রাম্পের সঙ্গে বাদানুবাদের জেরে এক যাত্রীকে বিমান থেকে নামিয়ে দেয়া হয়েছে। খবর রয়টার্স, বিবিসির।

ওই ব্যক্তি বিমানে উচ্চস্বরে ইভানকাকে বলতে থাকেন, ‘তুমি কেন আমাদের ফ্লাইটে? তোমার ব্যক্তিগত বিমান ব্যবহার করা উচিত।’

তিনি আরও বলেন, ‘তোমার বাবা (ডোনাল্ড ট্রাম্প) দেশকে ধ্বংস করছে।’ এ কথা বলার পরই মূলত দু’জনের মধ্যে মৃদু কথা কাটাকাটি হয়।

পরে নিউইয়র্কের জন এফ কেনেডি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ওই যাত্রীকে নামিয়ে দিয়ে ফ্লাইট রওনা হয়। ওই যাত্রী পরের ফ্লাইটে যান।

পরিবারের সঙ্গে ছুটি কাটানোর জন্য বৃহস্পতিবার ইভানকা নিউইয়র্কের জেএফ কেনেডি বিমান্দর থেকে জেডব্লু এয়ারওয়েজের একটি ফ্লাইটে হাওয়াই দ্বীপপুঞ্জে যাচ্ছিলেন। সেখানেই এ ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, প্রথমে ইভানকা লোকটিকে এড়িয়ে চলছিলেন এবং নিজের সন্তানদের খেলনা দিতে ব্যস্ত ছিলেন। কিন্তু লোকটি অযাচিতভাবে তার সঙ্গে বিবাদের চেষ্টা করেন।

এক ই-মেইল বার্তায় জেটব্লুর পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, ওই ঘটনার পরই ওই যাত্রীকে বিমান থেকে নামিয়ে দেয়া হয়েছে।

ইভানকাকে উদ্দেশ করে ওই যাত্রীর কথোপকথনের ব্যাপারে বিমান কর্তৃপক্ষ বলেছে, ‘ওই ফ্লাইট থেকে একজন গ্রাহককে নামিয়ে দেয়ায় সিদ্ধান্ত গ্রহণ সহজ ছিল না। ওই যাত্রীকে পরবর্তী ফ্লাইটে তার গন্তব্য পাঠানো হয়েছে।’

ডোনাল্ড ট্রাম্প ও তার পরিবার ফ্লোরিডার পাম বিচে মার-এ-লাগো রিসোর্টে বড়দিনের ছুটিতে ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন।

ফ্লাইট থেকে নামিয়ে দেয়া ওই যাত্রীর পরিচয় সম্পর্কে নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তবে ম্যাথু ল্যান্সার নামে এক নারী টুইটারে বলেছেন, তার স্বামী বিমানবন্দরে ওই বাদানুবাদে জড়িয়ে পড়েন।

তিনি টুইটে লেখেন, ‘ইভানকা এবং তার স্বামী জ্যারেড কুশনার জন এফ কেনেডি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে একটি ফ্লাইটে রওনা দেয়ার সময় ওই ঘটনা ঘটে।’

ইভানকা ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রথম স্ত্রী ইভানার সন্তান। ডোনাল্ড ট্রাম্পের সন্তানদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি পরিচিত এবং তাকে সবচেয়ে প্রভাবশালী ভাবা হয়।

প্রথম দিকে মডেলিং করতেন। ট্রাম্পের জনপ্রিয় রিয়েলিটি শো ‘দ্য অ্যাপ্রেনটিস’র একজন বিচারক ছিলেন ইভানকা। এখন তিনি ট্রাম্প অর্গানাইজেশনের ভাইস প্রেসিডেন্ট।