Press "Enter" to skip to content

ট্রাম্পের টুইটার ব্যবহারের বিপক্ষে নাগরিকরা

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পকে টুইটার ব্যবহার না করার পক্ষে মত দিয়েছেন বেশির ভাগ মার্কিন নাগরিক। নতুন এক জরিপে দেখা গেছে, মাত্র ২৬ শতাংশ মার্কিন নাগরিক মনে করেন ট্রাম্পের টুইটার ব্যবহার ‘যথাযথ’।

কিন্তু ৫৯ শতাংশ নাগরিকের মতে তার টুইটার ব্যবহার করা উচিত নয়। আর বাকি ১৫ শতাংশ এ ব্যাপারে ‘নিশ্চিত নন’ বলে মত দিয়েছেন। খবর নিউজউইকের।

ট্রাম্পের টুইটার ব্যবহার নিয়ে এই জরিপটি চালিয়েছে দ্য ইকোনোমিস্ট এবং ইউগভ। বুধবার এর ফলাফল প্রকাশ করেছে সংস্থাটি। টুইটারে ৪.৫২ কোটি অনুসারী রয়েছেন ট্রাম্পের।

ট্রাম্প টুইটার আর্কাইভ ডটকম-এর তথ্যানুসারে ২০১৭ সালে ২৬০০ বারের বেশি টুইট করেছেন তিনি। জরিপে অংশ নেয়া ডেমোক্রেটদের শতকরা ৮৭ ভাগ মনে করেন, ট্রাম্প টুইটার ব্যবহারের জন্য অনুপযুক্ত। অর্ধেক রিপাবলিকানও তেমনটা মনে করেন বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে।

প্রায়শই মূলধারার মাধ্যমগুলোকে ‘ভুয়া সংবাদ’ বলে আসছেন ট্রাম্প।

সম্প্রতি তিনি বলেন, সামাজিক মাধ্যম তার বার্তা জনগণের কাছে পৌঁছে দিতে সহায়তা করছে।

ট্রাম্প বলেন, ‘আমাদের ভিত্তি কতটা বড় এবং কতটা মজবুত তা ভুয়া খবরে সেটা নিয়ে কিছু বলা হচ্ছে না। তারা ভুয়া জরিপ দেখায় যেমনটা তারা ভুয়া খবর প্রকাশ করে। শুধু নেতিবাচক প্রতিবেদন সত্ত্বেও আমরা ভালো করছি, কেউ আমাদের থামাতে পারবে না।’

এই জরিপ প্রকাশের একদিন আগেই সাক্ষাৎকারে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহার নিয়ে সমালোচনা করেছেন সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা।

Mission News Theme by Compete Themes.