ব্রেকিং নিউজ

বিকাল ৫:৪২ ঢাকা, বৃহস্পতিবার  ২০শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

‘ট্রাম্পকে গুলি করার চেষ্টায় গ্রেপ্তার’

মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে সম্ভাব্য রিপাবলিকান প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্পের সমাবেশ থেকে এক যুবককে আটক করা হয়েছে।

ব্রিটিশ ওই যুব সমাবেশে নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা এক পুলিশ অফিসারের অস্ত্র ছিনিয়ে নেয়ার চেষ্টা করেছিলেন।

ব্রিটিশ ড্রাইভিং লাইসেন্সধারী মাইকেল স্টিভেন স্যানফোর্ড নেভাদা অঙ্গরাজ্যের পুলিশি হেফাজতে রয়েছেন।

আদালতের কাছে স্বীকারোক্তিতে ডোনাল্ড ট্রাম্পকে গুলি করার জন্য অস্ত্র ছিনিয়ে নেয়ার চেষ্টা করছিলেন বলে জানিয়েছেন তিনি। খবর বিবিসির।

শনিবার লাস ভেগাসে ট্রাম্পের একটি সমাবেশে পোশাকধারী একজন পুলিশ কর্মকর্তার কাছ থেকে জোরপূর্বক অস্ত্র ছিনিয়ে নেয়ার চেষ্টা করে মাইকেল স্যানফোর্ড। পরে তাকে আটক করা হয়। তবে ওই ঘটনায় কেউ আহত হয়নি।

আটকের পর মার্কিন নিরাপত্তা সংস্থা, সিক্রেট সার্ভিস স্যানফোর্ডকে জিজ্ঞাসাবাদ করে।

আদালতে জমা দেয়া নথিপত্র অনুযায়ী স্যানফোর্ড বলেছেন, তিনি ক্যালিফোর্নিয়া থেকে নেভাদায় গাড়ি চালিয়ে এসেছেন শুধুমাত্র ট্রাম্পকে গুলি করার লক্ষ্যে।

আদালতের নথিপত্রে উল্লেখ রয়েছে যে, মাইকেল স্যানফোর্ড প্রায় বছরখানেক যাবৎ এই হামলার পরিকল্পনা করছিলেন এবং গত শুক্রবার একটি শুটিং রেঞ্জে গিয়ে অস্ত্র চালনাও শেখেন। সেখানে তিনি একটি পিস্তল থেকে ২০ রাউন্ড গুলি করেন।

তার কাছে থাকা ড্রাইভিং লাইসেন্স থেকে ধারণা করা হচ্ছে, তিনি ব্রিটিশ। ১৯ বছর বয়স্ক স্যানফোর্ড সিক্রেট সার্ভিসকে বলেছেন, তিনি গত ১৮ মাস যাবৎ যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থান করছেন এবং প্রথমে তিনি নিউ জার্সিতে বসবাস করতেন।

আদালতের নথিপত্রে তার বরাত দিয়ে বলা হয়েছে, তিনি ধারণা করেছিলেন যে হামলার সময় তার নিজেরও মৃত্যু হতে পারে। এমনকি এই সুযোগটি হাতছাড়া হয়ে গেলে ডোনাল্ড ট্রাম্পকে হত্যার জন্য অ্যারিজোনায় অপর একটি সমাবেশের টিকেটও তার কাছে ছিল।