ব্রেকিং নিউজ

বিকাল ৫:২৪ ঢাকা, শুক্রবার  ২১শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

জিম্মি উদ্ধার অভিযান শেষ, নিহত ৫, উদ্ধার ১৪

গুলশানের হলি আর্টিজান রেস্তোরাঁয় জিম্মি উদ্ধারে অভিযান শেষ হয়েছে। আজ শনিবার সকাল ৭টা ৪০ মিনিটে শরু হওয়া অভিযান সকাল ৮টা ২০ মিনিটে শেষ হয়। এখন পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। এখন পর্যন্ত ৫ জন নিহতের খবর জানানো হয়েছে। কিন্তু এদের নাম পরিচয় জানা যায় নি। আহতসহ ১৪ জন বিদেশি নাগরিককে জীবিত উদ্ধার করা হয়েছে। এদের মধ্যে নারী, পুরুষ ও শিশু রয়েছে।

এদিকে, একজন বিদেশি নাগরিক ও একজন জঙ্গিকে সিএমএইচ- এ নেয়া হয়েছে। সকাল থেকে ৭টি অ্যাম্বুলেন্স গিয়ে ওই ভবনের সামনে দাঁড়ায়। কাদের লাশ ওঠানো হয়েছে তা জানা যায় নি। এ ঘটনার কবলে পড়া লোকদের স্বজনরা আহাজারি করতে থাকেন বাইরে থেকে।

ভেতরে জিম্মি হওয়া কুক সমির রায়ের বোন পুতুল রায় জানান, রাতে তার ভাইয়ের সাথে কথা হয়েছিল। অভিযান চলার পর থেকে তার খোঁজ পাচ্ছি না।

এই অভিযানের সময় সেনা প্রধান জেনারেল আবু বেলাল মো শফিউল হক উপস্থিত থেকে নেতৃত্ব দেন। এই অভিযানে ছিল- সেনাবাহিনীর পদাতিক ডিভিশন ও সেনাবাহিনীর কমান্ডো টিম। তাদের সঙ্গে কাজ করেছে র‌্যাব, পুলিশ, ডিবি, সিআইডি ও বিজিবিসহ সব বাহিনী। এর পরই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করছেন স্বরাষ্টমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, শুক্রবার রাত পৌনে ৯টার দিকে ‘আল্লাহু আকবর’ বলে ৮-১০ জনের একদল অস্ত্রধারী গুলশানের হলি আর্টিজান রেস্তোরাঁয় হামলা চালায়। ওই সময় অবস্থানরত অজ্ঞাত সংখ্যক অতিথি সেখানে আটকা পড়েন।

পরে ওই পরিস্থিতি সামাল দিতে গিয়ে নিহত হন বনানী থানার ওসি সালাউদ্দিন ও গোয়েন্দা পুলিশের সহকারী কমিশনার রবিউল ইসলাম।