Sheersha Media

ব্রেকিং নিউজ

রাত ১০:৪৩ ঢাকা, রবিবার  ১৮ই নভেম্বর ২০১৮ ইং

“জঙ্গীমুক্ত-সন্ত্রাসমুক্ত-শান্তিপূর্ণ দেশ গড়তে নব্বই”র মত সজাগ থাকুন”

তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বাংলাদেশকে জঙ্গীমুক্ত, সন্ত্রাসমুক্ত ও শান্তিপূর্ণ দেশ হিসেবে গড়ে তুলতে একাত্তর ও নব্বই সালের মত সমগ্র জাতিকে সজাগ থাকার আহবান জানিয়েছেন।
মুক্তিযুদ্ধের চেতনার ধনুক বেছে নিয়ে দেশকে সামনের দিকে এগিয়ে নিতে ধারণার তীর ছুঁড়ে লক্ষ্য ভেদ করতে হবে উল্লেখ করে তিনি বলেন, পৃথিবীতে উপনিবেশবাদ সামরিকতন্ত্র পতনের পর বর্তমানে ধর্মনিরপেক্ষ, অসাম্প্রদায়িক, গণতান্ত্রিক ও সমাজবাদী ধারার সাথে ধর্মভিত্তিক সাম্প্রদায়িক জঙ্গীবাদী ধারার লড়াই চলছে।
তথমন্ত্রী আজ রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে কাজী নজরুল ইসলাম মিলনায়তনে আয়োজিত শহীদ ড. শামসুজ্জোহা স্মারক বক্তৃতা প্রদান অনুষ্ঠানে স্মারক বক্তা হিসেবে ‘‘ বাংলাদেশের গণতন্ত্রকে জঞ্জালমুক্ত করতে হবে’’ বিষয়ে বক্তৃতাকালে ্একথা বলেন। এসময় সংসদ সদস্য ফজলে হোসেন বাদশা মন্ত্রীর সাথে ছিলেন।
রাবির রসায়ন বিভাগের সভাপতি প্রফেসর ড. মো: নজরুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপাচার্য প্রফেসর ড. মুহাম্মদ মিজানউদ্দিন, উপ উপাচার্য প্রফেসর ড. চৌধুরী সারওয়ার জাহান, কোষাধ্যক্ষ প্রফেসর মো: সায়েন উদ্দিন আহমেদ বক্তৃতা করেন।
হাসানুল হক ইনু বলেন, বৃটিশ উপনিবেশিক শাসন, পাকিস্তানী উপনিবেশিক শাসন, সামরিক শাসনের মাধ্যমে উদ্ভুত রাজনৈতিক জঞ্জাল বিশেষ কোন রাজনৈতিক দলের পৃষ্ঠপোষকতা লাভ করায় এদেশের গণতান্ত্রিক চর্”াও শঙ্কটাপন্ন ।
মূলত আদর্শগত চিন্তার পাথর্ক্যরে কারণে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তির বিভাজন মুক্তিযুদ্ধ বিরোধী দেশী-বিদেশী চক্রকে সক্রিয় করে গণতন্ত্রকে হুমকির মুখে ঠেলে দিয়েছে বলে তিনি মন্তব্য করেন।
তথ্যমন্ত্রী বলেন, বাঙালি জাতির মহান স্বাধীনতা সংগ্রামের বেদীমূলে আত্মবলীদানকারী শহীদ ড. শামসুজ্জোহার আত্মবলীদান বাঙালি জাতির স্বাধীনতার সংগ্রামকে এক উচ্চতর ধাপে নিয়ে গিয়েছিল। তিনি বলেন, শহীদ জোহার আত্মত্যাগ ৬৯-র উত্তাল দিনগুলিতে সমগ্র জাতিকে স্বাধীনতার জন্য নিশঃস্কচিত্তে আত্মবলীদানে অনুপ্রাণিত করেছিল।
তিনি বলেন, উচ্চশিক্ষা-জ্ঞান-মুক্তবুদ্ধির চর্চার কেন্দ্র হিসেবে একটি বিশ্ববিদ্যালয়ও যে জাতীয় জীবনের প্রয়োজনের ঐতিহাসিক দায়িত্ব পালন করতে পারে, শহীদ ড. জোহা আত্মবলীদানের মধ্য দিয়ে তা প্রমাণিত হয়েছে।
মন্ত্রী ইতিহাস ও বীর শহীদদের যথাযথ মর্যাদা প্রদানের বিষয়ে গুরুত্বারোপ করে বলেন, ইতিহাসকে ধারণ করে একটি জাতি ধাপে ধাপে সামনের দিকে এগিয়ে যায়।
এর আগে মন্ত্রী শহীদ ড. জোহার মাজার ও স্মৃতিফলকে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন।