Sheersha Media

ব্রেকিং নিউজ

দুপুর ১২:২৪ ঢাকা, রবিবার  ১৮ই নভেম্বর ২০১৮ ইং

চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং
চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং

চীনা প্রেসিডেন্ট এলে গুরুত্বপূর্ণ চুক্তি সই হবে

চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংয়ের আসন্ন বাংলাদেশ সফরের আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দিয়েছে বেইজিং। সফরকালে বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ চুক্তি সই হতে পারে।

তিন দেশ সফরের অংশ হিসেবে চীনের প্রেসিডেন্ট এবার কম্বোডিয়া, বাংলাদেশ ও ভারত সফর করবেন। তার পূর্ব নির্ধারিত নেপাল সফর বাতিল হয়েছে। ভারতে তিনি ব্রিকস সম্মেলনে যোগ দেবেন।

প্রায় তিন দশক পর চীনের কোনো প্রেসিডেন্টের এটি প্রথম বাংলাদেশ সফর। সফরকালে দু’দেশের মধ্যে বেশ কিছু চুক্তি সই হবে।

চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র লু কেং সোমবার এক ঘোষণায় বলেন, ‘কম্বোডিয়ার রাজা নরোদম শিহামনি, বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ ও ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির আমন্ত্রণে প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং কম্বোডিয়া, বাংলাদেশ এবং ভারতের গোয়ায় অষ্টম ব্রিকস সম্মেলনে যোগদানের লক্ষ্যে আগামী ১৩ থেকে ১৭ অক্টোবর পর্যন্ত রাষ্ট্রীয় সফরে যাবেন।’

চীনের উপপররাষ্ট্রমন্ত্রী লি বাউডং বেইজিংয়ে প্রেসিডেন্ট শি’র বাংলাদেশ সফর সম্পর্কে সাংবাদিকদের ব্রিফিংকালে বলেন, সফরকালে দু’দেশ গুরুত্বপূর্ণ চুক্তি সই করবে।

তিনি আরও বলেন, গোয়ায় অনুষ্ঠেয় সম্মেলনটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ এ কারণে যে, পাঁচ জাতির ব্রিকস ব্লকের নেতাদের সঙ্গে বিমসটেক নেতাদের বৈঠকের সুযোগ সৃষ্টি হবে।

এদিকে, চীনের প্রেসিডেন্টের নেপাল সফর বাতিল করা হয়েছে। বাংলাদেশে আসার আগে তার নেপাল সফরে যাওয়ার কথা ছিল। তবে নেপালের প্রধানমন্ত্রী পুস্প কমল দহল প্রচন্ড ভারতের পর্যটন নগরী গোয়ায় ব্রিকস সম্মেলনের সাইডলাইনে চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংয়ের সঙ্গে বৈঠক করবেন বলে জানা গেছে।

বিশ্লেষকদের ধারণা, চীন ও নেপালের মধ্যে সংযোগ স্থাপনের চুক্তি বাস্তবায়ন বিলম্বিত হওয়ায় চীন খুবই হতাশ। এ কারণেই চীনের প্রেসিডেন্টের নেপাল সফর বাতিল হয়েছে।

ব্রাজিল, রাশিয়া, ভারত, চীন ও দক্ষিণ আফ্রিকার সমন্বয়ে গঠিত জোট ব্রিকস সম্মেলন আগামী ১৫ ও ১৬ অক্টোবর ভারতের পর্যটন নগরী গোয়ায় অনুষ্ঠিত হবে।

ব্রিকস সম্মেলনের দ্বিতীয় দিনে অর্থাৎ ১৬ অক্টোবর বঙ্গপোসাগরীয় জোট বিমসটেকের শীর্ষ নেতারা ব্রিকস নেতৃবৃন্দের সঙ্গে আউটরিচ সম্মেলনে যোগ দেবেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এই আউটরিচ সম্মেলনে যোগ দিতে আগামী ১৬ অক্টোবর ভারতের গোয়ায় যাচ্ছেন। সেখানে সাইডলাইনে তিনি ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বৈঠক করবেন।

ঢাকায় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা বলছেন, চীনের প্রেসিডেন্ট আগামী ১৪ অক্টোবর দু’দিনের সফরে ঢাকায় আসবেন।

রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদের সঙ্গে চীনের প্রেসিডেন্টের বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে চীনের প্রেসিডেন্টের গুরুত্বপূর্ণ বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে।

বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়া চীনের প্রেসিডেন্টের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করবেন।

চীনের প্রেসিডেন্ট বাংলাদেশে বেশ কিছু মেগা প্রকল্পে বড় অংকের ঋণ ঘোষণা করবেন বলে আশা করা হচ্ছে। তবে কয়টি প্রকল্পে কত অংকের ঋণ ঘোষণা করা হবে তা এখনও চূড়ান্ত হয়নি।