Sheersha Media

ব্রেকিং নিউজ

রাত ৮:২৬ ঢাকা, বুধবার  ২১শে নভেম্বর ২০১৮ ইং

‘গোটা রাষ্ট্রকেই হত্যা-চেষ্টা শুরু হবে’

আবারও, আরও একবার, বাংলাদেশে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের মানুষের হত্যার ঘটনা ঘটল। এবার ঝিনাইদহে, হিন্দু এক পুরোহিতকে গলা কেটে খুন করল ইসলামি জঙ্গিরা। আরও একবার ইসলামিক স্টেট এই হত্যার দায় স্বীকার করেছে। সম্ভবত আরও একবার ঢাকা বলবে, আই এস কার্যকলাপের ঘটনা নেই বাংলাদেশে।

বাংলাদেশের লেখক মাসুদা ভাট্টি যথার্থই লিখেছেন, রাষ্ট্রকে আঘাত করা হচ্ছে, চেষ্টা চলছে রাষ্ট্রকে ছিন্ন-বিচ্ছিন্ন করে দেওয়ার। এবং, কবি-সাহিত্যিক-ব্লগারদের সঙ্গে যখন অমুসলিম নাগরিকদের উপর আক্রমণ নেমে আসে, তখন, মাসুদার মতে, আর বেশি দিন নেই যে, গোটা রাষ্ট্রকেই হত্যা-চেষ্টা শুরু হবে।

সন্দেহ নেই, শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ গত কয়েক বছরে আন্তর্জাতিকভাবে বেশ অনেকটাই সমীহ আদায় করতে সমর্থ হয়েছে। অভ্যন্তরীণ পরিবেশে বিশেষত মৌলবাদীদের প্রতিকূল আবহের সঙ্গে লড়াই করতে করতে এই জায়গায় প‌ৌঁছানো মোটেই সহজ ঘটনা নয়। এই কঠিন কাজটা যখন তিনি করতে পারছেন, তখন প্রত্যাশা আরও বাড়া স্বাভাবিক, এটা আশা করা যায় প্রধানমন্ত্রী হাসিনা বুঝবেন।

সংখ্যালঘু নিধন যারা করছে, যারা উল্লাস করছে এই ভয়ঙ্কর ঘটনায়, তারা বাংলাদেশের বন্ধু নয়। বাংলাদেশের মানুষের মূল ভাবনার স্রোত থেকেও তাদের বাস অনেক দূরে। আওয়ামি লিগ সরকার এবার দৃঢ় হাতে এই ‘শত্রু’দের মোকাবিলা করুক, এটাই চাইছেন বাংলাদেশের মানুষ। আনন্দবাজার।

http://www.anandabazar.com/state/terrorists-are-trying-to-disintegrate-bangladesh-dgtl-1.405465#popup