ব্রেকিং নিউজ

রাত ১১:০৫ ঢাকা, মঙ্গলবার  ২৫শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

ফখরুল ইসলাম আলমগীর
বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, ফাইল ফটো

গণতন্ত্রের মোড়কে স্বৈরশাসক ক্ষমতায়

বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, অধিকার আদায়ের আন্দোলনে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।

তিনি শুক্রবার ইঞ্জিনিয়ার্স ইন্সটিটিউট মিলনায়তনে আমার দেশ বন্ধ ও মাহমুদুর রহমানের কারাবরণের এক হাজার দিবস উপলক্ষে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে একথা বলেন। মির্জা ফখরুল বলেন, দেশে এখন ফ্যাসিবাদী সরকারের শাসন চলছে।গণতন্ত্রের মোড়কে স্বৈরশাসক ক্ষমতায় বসে আছে। মানুষের অধিকার আদায়ে সবাইকে সোচ্চার হতে হবে।
তিনি বলেন,এই সরকার গণতন্ত্রে বিশ্বাস করে না।গণতন্ত্রের মুখোশ পড়ে ক্ষমতায় জগদ্দল পাথরের মতো চেপে বসে আছে।
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি অধ্যাপক ড. এমাজউদ্দীন আহমদের সভাপতিত্বে কলামিস্ট ফরহাদ মজহার, গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী, সাংবাদিক শফিক রেহমান, সম্মিলিত পেশাজীবী পরিষদের ভারপ্রাপ্ত আহ্বায়ক সাংবাদিক রুহুল আমিন গাজী প্রমুখ অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন।
মির্জা ফখরুল বলেন, সাংবাদিক সমাজ আজ বিভক্ত। এতে সবচেয়ে বেশি লাভবান হয়েছে সরকার। কারণ, সাংবাদিকরা বিভক্ত হওয়ায় আজ তারা সাংবাদিকদের স্বার্থেও কথা বলতে পারছেন না। এটি জাতির জন্য দুর্ভাগ্যজনক।
তিনি বলেন, ‘শুধু সাংবাদিক সমাজ নয়, এই সরকার গোটা জাতিকেই আজ বিভক্ত করে ফেলেছে। দেশ ও জাতির জন্য আজ অত্যন্ত দুঃসময়। মানুষের কোনো ধরনের অধিকার নেই। কথা বলা, লেখা ও ভোট দেয়াসহ মানুষের সব অধিকার কেড়ে নেয়া হয়েছে। এসব অধিকার ফিরে পেতে ও হারানো গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারে আজ সবচেয়ে বেশি প্রয়োজন জাতীয় ঐক্য। তাই নিজেদের ছোট-খাট দ্বিধা-দ্বন্দ্ব ভুলে দেশ ও জাতীয় স্বার্থে আমাদের ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। বর্তমান সময়ে এটিই সবচেয়ে জরুরি।
এসময় তিনি সাংবাদিক শওকত মাহমুদ, সম্পাদক মাহমুদুর রহমানসহ সকল সাংবাদিক এবং বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, এম কে আনোয়ারসহ সকল রাজবন্দির মুক্তি দাবি করেন।