Sheersha Media

ব্রেকিং নিউজ

রাত ১১:১১ ঢাকা, বৃহস্পতিবার  ১৫ই নভেম্বর ২০১৮ ইং

খালেদার ডাকে রাজপথে কে এই যুবক ?

২০ দলীয় জোটের ‘গণতন্ত্র হত্যা’ দিবসে যখন পুরো দেশ অবরুদ্ধ। নিজ অফিসে অবরুদ্ধ ২০ দলীয় জোটের প্রধান বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া। যখন উদ্বেগ-উৎকণ্ঠা, আতঙ্ক আর টানটান উত্তেজনা বিরাজ করছে পুরো নয়াপল্টন এলাকায়।

ঠিক তখনই সোমবার সকাল সোয়া ৯ টায় হঠাৎ করেই হোটেল ভিক্টোরিয়ার পাশের গলি দিয়ে খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়ে হেঁটে রাস্তায় আসে এক যুবক। গায়ের ফুল হাতা সাদা গেঞ্জিটা কোমড়ে বাঁধা। তার বুকের মধ্যে সাদা কালি দিয়ে কিছু একটা লেখা দেখা যাচ্ছিল। হাতে রয়েছে একটি পোস্টার।

একটু সামনে অগ্রসর হয়েই দেখা গেলো তার বুকে লেখা ‘স্বৈরাচার নিপাত যাক’ আর পিঠে লেখা ‘গণতন্ত্র মুক্তি পাক’।

খালেদা জিয়ার ডাকে সাড়া দিয়ে যে ছেলেটি সোমবার পুলিশের হাতে নিশ্চিত আটক হবে জেনেও সকল ভয়-ভীতিকে উপেক্ষা করে রাজপথে গণতন্ত্রকে পুনরুদ্ধার করতে এসেছে তার নাম দেলোয়ার হোসাইন।  বয়স-২৮, পিতার নাম-ইসমাইল আকন্দ, গ্রাম-বক্তারপুর, থানা-কালিগঞ্জ, জেলা- গাজীপুর।

তার দু‍:সাহস দেখে পুলিশ ও গণমাধ্যমকর্মীরা হতবাক হয়ে যায়। ভয়-আতঙ্কে যেখানে নেতাকর্মীতো দূরের কথা সাধারণ মানুষও রাস্তায় নামছে না | সেখানে একজন যুবক  এভাবে বুকে আর পিঠে লিখে রাজপথে চলে আসার দৃশ্য যেন সেই ন‍ূর হোসেনের কথাই বার বার স্মরণ করিয়ে দিচ্ছিলো।

তবে সাদা কাগজে হাতে লেখা একটি পোস্টারও ছিল তার হাতে। গণমাধ্যকর্মীরা বুঝে উঠার আগেই পুলিশ তার হাত থেকে পোস্টারটি নিয়ে যায়। পরে তাকে আর বেশিক্ষণ রাস্তায় অবস্থান করার সুযোগ দেয়নি পুলিশ। সাথে সাথে তাকে ধরে নিয়ে যায় পল্টন মডেল থানায়। এর কিছুক্ষণ পর থানায় গিয়ে দেখা যায় ডিউটি অফিসারের পাশে দেলোয়ার স্বাভাবিকভাবেই দাঁড়িয়ে আছে। তার চোখে মুখে বিষন্নতার কোন ছাপ নেই। হাস্যোজ্জল চেহারা।

তাকে দেখে অনেকেই বলাবলি করছিল, বেগম খালেদা জিয়াসহ ২০ দলের নেতারা তাকে ভুলে যাবে নাতো?