ব্রেকিং নিউজ

রাত ৯:২৪ ঢাকা, বৃহস্পতিবার  ১৯শে এপ্রিল ২০১৮ ইং

ওবায়দুল কাদের
আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের

ক্ষমতার কাছে ছিল কিন্তু শেখ কামালের হাওয়া ভবন ছিল না

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ক্ষমতার কাছে থেকেও শেখ কামালের কোন হাওয়া ভবন ছিল না। বাংলাদেশে একজন ক্ষমতায় আসেন, হয়ে যায় বিকল্প পাওয়ার সেন্টার, হাওয়া ভবন গড়ে তোলেন। গর্ব করে বলতে পারি বঙ্গবন্ধুর পুত্র শেখ কামালের কোন হাওয়া ভবন ছিল না। ক্ষমতার কাছে থেকেও তিনি ক্ষমতার অপব্যবহার করেননি।

ওবায়দুল কাদের আজ শনিবার জাতীয় প্রেসক্লাবের কনফারেন্স লাউঞ্জে শহীদ শেখ কামালের ৬৮তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, শেখ কামালের মধ্যে যেসব গুণাবলী ছিল তা তার সমসায়িককালের কারও মধ্যে আমি দেখিনি। শেখ কামাল পরবর্তী নির্বাচনের জন্য কাজ করেননি তিনি কাজ করেছিলেন পরবর্তী প্রজন্মের জন্য।

সতীর্থ-স্বজন আয়োজিত এই আলোচনা সভার সভাপতিত্বে করেন বিশিষ্ট সাংবাদিক আবেদ খান। এছাড়াও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক, আওয়ামী লীগের যুব ও ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক হারুনুর রশীদ, জাতীয় প্রেসক্লাবের সভাপতি শফিকুর রহমান, সংস্কৃতি ব্যাক্তিত্ব পীযূষ বন্দ্যোপাধ্যায় প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

যোড়ষসংশোধনী বাতিল প্রসঙ্গে বিএনপিকে ইঙ্গিত করে ওবায়দুল কাদের বলেন, কেউ কেউ সুপ্রীমে কোর্টে ষোড়শ সংশোধনী বাতিল হওয়ায় মহাখুশি। এরা এভাবেই খুশি হয়। আনন্দে নৃত্য শুরু করে। কিছুক্ষণ আগে বিএনপির এক নেতা বলেছেন, তারা (বিএনপি) আশার আলো দেখছেন। অন্য ইস্যু সামনে এলে তাদের এই আশার আলো অচিরেই নিবে যাবে। জনগণকে সঙ্গে নিয়ে আসুন। ঘটনায় দুর্ঘটনায় ইস্যু খুঁজে লাভ নাই।

৫৭ ধারা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘৫৭ ধারার অপপ্রয়োগ বন্ধ করতে হবে। এটা প্রবণতা আত্মঘাতী।