ব্রেকিং নিউজ

সকাল ৯:৫৯ ঢাকা, মঙ্গলবার  ১৬ই অক্টোবর ২০১৮ ইং

ফাইল ফটো

কেন্দ্রীয় কারাগার নিয়ন্ত্রিত কম্বল কারখানার আগুন নিয়ন্ত্রণে

রাজধানীর বকশি বাজার এলাকায় ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগার নিয়ন্ত্রিত কম্বল কারখানার আগুন নিয়ন্ত্রণে এসেছে। সন্ধ্যা ছয়টার পর পরই আগুন নিয়ন্ত্রনে আসে। কারখানার ভেতরের আগুন পুরোপুরি থামানোর জন্য আরো কিছু সময় লাগবে বলে জানিয়েছেন ফায়ার সার্ভিসের কর্মকর্তারা।  তবে আগুনের কারনে আর ভয়ের কোনো কারণ নেই বলে জানিয়েছেন দমকল বাহিনীর এক সিনিয়র কর্মকর্তা।তবে ঠিক কি কারণে আগুন লেগেছে সে বিষয়ে জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন, এটা ঠিক এখনই বলা যাচ্ছে না। তদন্তের পর এ বিষয়ে বলা যাবে।  তবে আগুনে কয়েদিদের কোনো ক্ষতি হয়নি।আগুন লাগার পর পরই কয়েদিদেরকে নিরাপদ স্থানে নিয়ে যাওয়া হয়েছে বলে আইজি প্রিজন জানিয়েছেন।  দুর্ঘটনার পরপরই আইজি প্রিজন দুর্ঘটনাস্থল ঘুরে গেছেন।তিনি বলেছেন, কয়েদিরা সবাই নিরাপদে রয়েছেন।

ঘটনা পর ওই কারখানার মালিক ওয়ারেসাত হোসেন বেলাল বীরপ্রতীক সাংবাদিকদের কাছে দাবি করেন, বৈদ্যুতিক বাল্ব ফেটে গিয়ে কম্বলের ওপর পড়লে এ অগ্নিকাণ্ডের সূত্রপাত হয়

এখানে মন্ত্রণালয়ের বিভিন্ন জন্য ২ লাখ ২১ হাজার ৫০০ পিস ও জেলখানার জন্য ২০হাজার পিস কম্বল তৈরি কাজ চলছিল। এসব কম্বল তৈরিতে ১ থেকে দেড়শ শ্রমিক কাজ করতো বলে জানান তিনি। শুক্রবার বিকেল ৪টা ২০ মিনিটের দিকে আগুন লাগে বলে জানিয়েছেন ফায়ার সার্ভিস নিয়ন্ত্রণ কক্ষের কর্মকর্তা মোহাম্মদ আলী। তিনি বলেন, ”ওই কম্বলের কারখানাটির অবস্থান কেন্দ্রীয় কারাগারের আইজি প্রিজন অফিস সংলগ্ন। আগুন লাগার খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের ছয়টি ইউনিট সেখানে পৌঁছে নেভানোর কাজ শুরু করেছে।”

অগ্নিকাণ্ডের কিছুক্ষণের মধ্যেই একতলা ওই কারখানার আগুন নিয়ন্ত্রণে চলে এসেছে বলেও জানান তিনি।তবে কোথা থেকে আগুনের সূত্রপাত তাৎক্ষণিকভাবে তা জানাতে পারেননি ফায়ার সার্ভিস কর্মকর্তা মোহাম্মদ আলী।