ব্রেকিং নিউজ

সকাল ৯:৫৪ ঢাকা, সোমবার  ২৪শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

কেউ পার পাবে না

খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম বলেছেন, দেশে অস্থিরতা ও সহিংসতা সৃষ্টিকারী সন্ত্রাসীদের সঙ্গে কোন আপোস বা কোন ধরনের আলোচনা হবে না। জ্বালাও পোড়াও করেও কেউ পার পাবে না।
তিনি বলেন, একটি অশুভ শক্তি বঙ্গবন্ধুকে হত্যার মধ্যে দিয়ে দেশে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা, দেশের স্বাধীনতাকে ধ্বংসের চেষ্টা করেছে।
আজ বিকেলে কেরানীগঞ্জের রুহিতপুর ইউনিয়ন যুবলীগ আয়োজিত ত্রি- বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।
খাদ্যমন্ত্রী বলেন, ৫ জানুয়ারি সমাবেশ করতে দিলে বিএনপি-জামায়াত জোট দেশে ব্যাপক নৈরাজ্যের সৃষ্টি করতো। তাই আইন-শৃংখলা বাহিনী তাদের সমাবেশ করার অনুমতি দেয়নি।
তিনি বলেন, সরকার খালেদা জিয়াকে অবরুদ্ধ করেনি। তিনি পরিকল্পিতভাবে সেখানে অবস্থান করে নিজেকে অবরুদ্ধ রেখে দেশে নৈরাজ্য সৃষ্টি করছে।
কামরুল বলেন, জ্বালাও পোড়াওসহ মানুষ পুড়িয়ে হত্যা, রেললাইন উপড়ে ফেলে দেয়া সহিংসকারীদের বিরুদ্ধে পাড়ায়, মহল্লায় প্রতিরোধ কমিটি গঠন করতে হবে।
তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শান্তিপ্রিয় দেশবাসীকে সহিংসতা সৃষ্টিকারীদের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে এ কমিটি গঠনের নির্দেশ দিয়েছেন।
ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে সভাপতিত্ব করেন রুহিতপুর ইউনিয়ন যুবলীগের আহবায়ক মো. বিল্লাল হোসেন। মডেল থানা যুবলীগের সমন্বয়ক ইসতিয়াক আহম্মেদ সুজনের পরিচালনায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন রুহিতপুর ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল আলি, আওয়ামী লীগ সভাপতি সোলাইমান জামান সলেমান, কেরানীগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের আহবায়ক শাহিন আহমেদ, জেলা যুবলীগের সভাপতি শফিউল আযম খান বারকু, মডেল থানা যুবলীগের আহবায়ক ভিপি মনির হোসেন, মডেল থানা যুবলীগের সমন্বয়ক নাজমূল হোসেন নাসির, যুবলীগ নেতা জামাল হোসেন ও বশির উদ্দিন প্রমুখ।