Press "Enter" to skip to content

কিশোরগঞ্জে হত্যা মামলায় তিনজনের যাবজ্জীবন সাজা

বাজিতপুর উপজেলার দড়িঘাগটিয়া গ্রামের নাজনু মিয়াকে হত্যার দায়ে তিনজনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ডাদেশ দিয়েছে আদালত। একইসঙ্গে প্রত্যেককে ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো এক বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়।

আজ কিশোরগঞ্জের দ্বিতীয় আদালতের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আব্দুর রহমান এই রায় ঘোষণা করেন। দণ্ডিতরা হল- একই গ্রামের আঙ্গুর মিয়া (৩৪), জমসেদ মিয়া (৪৫) ও সেলিম মিয়া (২৬)। সাক্ষ্য-প্রমাণের অভাবে আসামি জ্যোৎস্না বেগমকে বেকসুর খালাস দেয়া হয়। রায় ঘোষণার সময় আসামিরা কাঠগড়ায় উপস্থিত ছিল।

মামলার বিবরণ থেকে জানা গেছে, নিহত নাজনু মিয়ার সঙ্গে আসামিদের জমি-জমা নিয়ে বিরোধ ও মামলা-মোকদ্দমা ছিল। ২০১২ সালের ১৮ এপ্রিল রাতে নাজনু মিয়াকে নারীর প্রলোভন দেখিয়ে আসামিরা বিলের পারে নিয়ে যায়। পরে সেখানে তাকে খুন করে লাশ একটি লাউ-জাংলার নীচে ফেলে রাখে।

এ ব্যাপারে নিহতের স্ত্রী আনোয়ারা খাতুন ছয়জনকে আসামি করে বাজিতপুর থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়। পরে মামলার তদন্তভার ডিবির নিকট হস্তান্তর করা হয়। মামলার তদন্ত চলাকালে এজাহারনামীয় আসামি ফদুর আলী ওরফে বুদুর আলী র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ প্রাণ হারায়। অপর আসামি মস্তু মিয়া জামিনে থাকা অবস্থায় মারা যায়।

২০১৭ সালের ২৫ ডিসেম্বর ডিবির ইন্সপেক্টর মো. মুর্শেদজামান তদন্তশেষে চারজনের বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশিট দাখিল করে। সরকার পক্ষে মামলাটি পরিচালনা করেন এপিপি এ কে এম আমিনুল হক ভুঁঞা এবং আসামি পক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট ক্ষিতীষ দেবনাথ।

শেয়ার অপশন:
Don`t copy text!