ব্রেকিং নিউজ

রাত ১২:২৩ ঢাকা, রবিবার  ২৩শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

কালীগঞ্জে হোমিও ডাক্তার হত্যা : আইএসের দায় স্বীকার

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জের নিমতলা বাসস্ট্যান্ডে দুর্বৃত্তদের হাতে নিহত হোমিও ডাক্তার  হাফেজ মো. আব্দুর রাজ্জাক হত্যাকাণ্ডের দায় মধ্যপ্রাচ্য ভিত্তিক জঙ্গি সংগঠন আইএস  স্বীকার করেছে বলে খবর দিয়েছে অনলাইনে জঙ্গি তৎপরতা পর্যবেক্ষণকারী সংগঠন সাইট ইন্টিলিজেন্স গ্রুপ ।
ঝিনাইদহের পুলিশ বলছে  তিনি ইসলামী ঐক্য আন্দোলনের জেলা সেক্রেটারি ছিলেন। তার ঘর থেকে এ সংক্রান্ত একটি কাগজ পাওয়া গেছে। তবে এখন পর্যন্ত এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় কেউ গ্রেফতার হয়নি। তিনি মাঝে মাঝে বিভিন্ন স্থানে ওয়াজ মাহফিল করতেন।
এদিকে কালীগঞ্জে প্রচার আছে- নিহত ডাক্তার হাফেজ আব্দুর রাজ্জাক সুন্নি মুসলমান থেকে শিয়া মতবাদে বিশ্বাসী হয়েছিলেন। তার হোমিও ডাক্তার খানার নাম ছিল খোমেনি হোমিও হল। তার দোকান ও বাড়িতে ইরানের ধর্মীয় নেতা খোমিনীর ছবি ছিল।
কিন্তু পুলিশ পুলিশ বলছে , তার পরিবারের সদস্যরা বলেছেন, তিনি সুন্নি মুসলমান ছিলেন। কখনো শিয়া মতবাদ গ্রহণ করেননি।
ইসলামী ঐক্য আন্দোলনের একাংশের ঝিনাইদহ জেলা সভাপতি আব্দুল বারি জানান, আব্দুর রাজ্জাক তাদের সঙ্গে ছিলেন। পরে পৃখক হয়ে যান। তিনি সুন্নি মুসলমান থেকে শিয়া মতবাদে বিশ্বাসী হয়েছিলেন।
পুলিশ সুপার গণমাধ্যমকে জানান, তদন্তে জানা গেছে তার বাড়ির পাশে একটি বাড়িতে মাদকের ব্যবসা চলত। তিনি তার বিরোধিতা করতেন। তাদের কয়েক জন ধরাও পড়ে। এজন্য হোমিও ডাক্তারকে দোষারোপ করে মাদক ব্যবসায়ীরা। কয়েক দিন আগে তার কাছে মোবাইল ফোনে দু লাখ টাকা চাঁদাও দাবি করা হয়েছিল।
এর আগে ৭ জানুয়ারি দুপুরে ঝিনাইদহ সদর উপজেলার বেলেখাল বাজারে ধর্মান্তরিত হোমিও ডাক্তার সমির উদ্দিনকে কুপিয়ে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা।  হত্যাকাণ্ডের ধরন একই রকম।  খুনিরা পেশাদার বলে ধারনা করা হচ্ছে। সমির উদ্দিন হত্যার দায়ও আইএস  স্বীকার করেছিল।