ব্রেকিং নিউজ

রাত ১১:২৪ ঢাকা, শুক্রবার  ২১শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের
সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের

কারো পরামর্শে ‘নির্বাচন’ হবে না, বার্নিকাটকে -কাদের

নির্বাচন নিয়ে ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত মার্শা বার্নিকাটের বক্তব্যের প্রতিক্রিয়ায় সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্র ও বাংলাদেশের জনগণের মধ্যে বিরূপ প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয় এমন মন্তব্য থেকে সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে। তাহলে বিদ্যমান বন্ধুত্বের সম্পর্ক অব্যাহত থাকবে।

ওবায়দুল কাদের বলেন, বাংলাদেশে সুষ্ঠু নির্বাচন হবে এটা অন্য কারো পরামর্শে নয়। এটি আমাদের নিজেদেরই দায়িত্ব। আমাদের সংবিধান অনুযায়ী আমাদের নির্বাচন কমিশন স্বাধীন কর্তৃত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে, সুষ্ঠু নির্বাচন আয়োজন করবে।

শুক্রবার সকাল ১০টার দিকে ঢাকার কেরানীগঞ্জে কলাকান্দি এলাকায় ঢাকা-ভাঙ্গা চার লেন সড়কের কাজ পরিদর্শন করার সময় কাদের এসব কথা বলেন।

আমি এখানে একটা কথা বলতে চাই, কোনো প্রকার ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত না করে আমি শুধু এটুকুই বলব, আমাদের সঙ্গে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বিরাজমান যেই বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক, সেই সম্পর্ক যেন ক্ষুণ্ণ বা ক্ষতিগ্রস্ত না হয় এবং উভয় দেশের জনগণের মধ্যে কোনো প্রকার বিরূপ প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি না করে, সে ব্যাপারে যেকোনো রকম আচরণ বা মন্তব্য দেওয়ার সময় আমাদের সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে, বন্ধুত্বের স্বার্থে। আমরা কিন্তু পৃথিবীর অন্য কোনো দেশের নির্বাচন নিয়ে, অভ্যন্তরীণ ব্যাপার নিয়ে কোনো কথা, কোনো দায়িত্বজ্ঞানহীন বক্তব্য আমরা কখনো দিই না। আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আরও বলেন, আজকে শুধু এটুকুই বলব, আমাদের বন্ধুত্বপূর্ণ যে সম্পর্ক আছে, সেটা বজায় থাকুক, এটা আমরা চাই। আমাদের উভয় দেশের জনগণই বিরূপ প্রতিক্রিয়া হয় এ ধরনের আচরণ এবং উচ্চারণ পারস্পরিক স্বার্থে আমাদের কারো পক্ষেই ভালো হবে বা শুভ হবে বলে আমি মনে করি না।

গতকাল বৃহস্পতিবার গাজীপুর সিটি করপোরেশনের নির্বাচনের অনিয়মের অভিযোগের ব্যাপারে উদ্বেগ প্রকাশ করেন মার্কিন রাষ্ট্রদূত মার্শা বার্নিকাট। তিনি বলেন, এসব স্থানীয় নির্বাচনই মূল নির্দেশক হিসেবে কাজ করবে জাতীয় নির্বাচন কেমন হবে, তা বোঝার জন্য। এ সময় মার্কিন রাষ্ট্রদূতকে প্রশ্ন করে ওবায়দুল বলেন, প্রতিদ্বন্দ্বী দলের একজন কেন্দ্রীয় নেতার নেতৃত্বে নির্বাচন বানচালের জন্য যে নাশকতার পরিকল্পনা করা হয়েছিল, সেটা নিয়ে কি কোনো উদ্বেগ নেই?

ওবায়দুল কাদের এসময় আরও বলেন, পদ্মাসেতুর কাজের সার্বিক অগ্রগতি ৫৬ শতাংশ। আবহাওয়া অনুকূলে থাকলে পদ্মাসেতুর ৫ম স্প্যান বিকাল ৩টার মধ্যে পিলারের ওপর ওঠানো হবে। চলতি বছরের অক্টোবরে ঢাকার যাত্রাবাড়ি থেকে ফরিদপুরের ভাঙ্গা পর্যন্ত চার লেনের মহাসড়কটি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উদ্বোধন করবেন বলে জানান মন্ত্রী।